জাতীয়

আজ দেশের উদ্দেশে রওনা হচ্ছেন সেই ২৮ নাবিক

চট্টগ্রাম, ০৮ মার্চ – ইউক্রেনের অলভিয়া সমুদ্রবন্দরে হামলার শিকার বাংলাদেশি জাহাজ ‘এমভি বাংলার সমৃদ্ধি’র ২৮ নাবিক আজ যেকোনো সময় দেশের উদ্দেশে রওনা হওয়ার কথা রয়েছে। মধ্যপ্রাচ্যের যেকোনো একটি দেশ হয়ে তারা বাংলাদেশে ফিরবেন।

মঙ্গলবার (৮ মার্চ) বাংলাদেশ মার্চেন্ট মেরিন অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমএমওএ) সাধারণ সম্পাদক মেরিন ইঞ্জিনিয়ার মো. সাখাওয়াত হোসাইন এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, ‘তাদের জন্য ইতোমধ্যে প্লেনের টিকিট নিশ্চিত হয়েছে। তবে কোন ফ্লাইটে, কখন তারা রওনা করবেন- তা এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তবে মধ্যপ্রাচ্যের একটি দেশ হয়ে তারা দেশে ফিরবেন।’

বিএমএমওএ সাধারণ সম্পাদক সাখাওয়াত হোসাইন বলেন, ‘সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী আটকেপড়া নাবিকরা রোমানিয়ায় অবস্থান করছিলেন। আজ (মঙ্গলবার) সন্ধ্যায় তাদের দেশে ফেরার সময়, ফ্লাইট ও অবস্থান সম্পর্কে স্পষ্ট তথ্য জানানো সম্ভব হবে। এছাড়া হামলায় নিহত জাহাজের থার্ড ইঞ্জিনিয়ার হাদিসুর রহমানের মরদেহ দেশে ফেরানোর প্রক্রিয়া শুরু করেছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।’

জানা গেছে, বাংলাদেশ শিপিং করপোরেশন (বিএসসি) মালিকানাধীন বাংলার সমৃদ্ধি জাহাজটি ডেনিশ কোম্পানি ডেল্টা করপোরেশনের অধীনে ভাড়ায় চলছিল। ভারতের মুম্বাই থেকে তুরস্ক হয়ে জাহাজটি গত ২২ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনের অলভিয়া বন্দরে পৌঁছে। সেখান থেকে সিমেন্ট ক্লে নিয়ে ২৪ ফেব্রুয়ারি ইতালির রেভেনা বন্দরের উদ্দেশে রওনা হওয়ার কথা ছিল জাহাজটির।

তবে এর মধ্যেই রাশিয়া ও ইউক্রেনের মধ্যে যুদ্ধ শুরু হলে অলভিয়া সমুদ্রবন্দরে ২৯ জন নাবিক নিয়ে জাহাজটি আটকে পড়ে। গত ২ মার্চ জাহাজটিতে রকেট হামলা হয়। এতে জাহাজের থার্ড ইঞ্জিনিয়ার হাদিসুর রহমান মারা যান। পরদিন ৩ মার্চ অক্ষত অবস্থায় জাহাজটি থেকে ২৮ নাবিককে সরিয়ে নেওয়া হয়। পরে তাদের নিরাপদ বাংকারে রাখা হয়।

পরে হাদিসুরের মরদেহ ও বেঁচে যাওয়া ২৮ নাবিককে একটি আন্তর্জাতিক স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার সহযোগিতায় উদ্ধার করে মালদোভাতে নেওয়া হয়। ৬ মার্চ বেলা ১১টার দিকে তারা ইউক্রেন সীমান্ত পেরিয়ে মালদোভা হয়ে রোমানিয়া পৌঁছান।

সূত্র: জাগো নিউজ
এম ইউ/০৮ মার্চ ২০২২

Back to top button