ক্রিকেট

মিরপুরে স্মরণ করা হবে ওয়ার্ন ও মার্শকে

ঢাকা, ০৫ মার্চ – একই দিনে দুই কিংবদন্তির মৃত্যুতে শোকে মুহ্যমান বিশ্ব ক্রিকেট। শুক্রবার সকালে অ্যাডিলেডে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয় সাবেক অস্ট্রেলিয়া উইকেটকিপার রডনি মার্শের। রাতেই খবর আসে, থাইল্যান্ডে হার্ট অ্যাটাকে পৃথিবীর মায়া ছেড়েছেন লেগ স্পিনার কিংবদন্তি শেন ওয়ার্ন।

অস্ট্রেলিয়ার দুই কিংবদন্তির মৃত্যু শোক প্রকাশ করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। সঙ্গে জানিয়েছে, শনিবার শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ ও আফগানিস্তানের মধ্যকার দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি ম্যাচ শুরুর আগে শেন ওয়ার্ন এবং রডনি মার্শের স্মরণে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হবে।

গত ২৪ ফেব্রুয়ারি একটি অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার পর অসুস্থ হয়ে পড়েন মার্শ। বড় ধরনের হার্ট অ্যাটাক হয় তার। সঙ্গে সঙ্গে হাসপাতালে নেন ইভেন্টের আয়োজকরা। কদিন আগে কুইন্সল্যান্ড থেকে অ্যাডিলেডের একটি হাসপাতালে ভর্তি করান হয় তাকে। তখনো সংকটাপন্ন কিন্তু স্থিতিশীল অবস্থায় ছিলেন বলে জানান তার ছেলে পল। শুক্রবার (৪ মার্চ) অ্যাডিলেডের হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয় ৭৪ বছর বয়সী মার্শের।

টেস্ট ক্রিকেটের সবচেয়ে গোছালো এই উইকেটকিপার ১৯৭০ থেকে ১৯৮৪ সাল পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়ার জার্সিতে ৯৬ টেস্ট খেলে করেছেন ৩৬৩৩ রান, সেঞ্চুরি তিনটি। যখন অবসর নেন, তখন তার নামের পাশে রেকর্ড ৩৫৫ ডিসমিসাল।

ওয়ার্নের মৃত্যুর খবর আচমকা আসে। ওয়ার্নের ম্যানেজমেন্ট কোম্পানি এক সংক্ষিপ্ত বিবৃতিতে জানিয়েছে, থাইল্যান্ডের কোহ সামুইয়ে মারা গেছেন তিনি। ধারণা করা হচ্ছে, হার্ট অ্যাটাকে তার মৃত্যু হয়েছে। বিবৃতিতে বলা হয়, শেন ওয়ার্নকে অচেতন অবস্থায় পাওয়া যায়। চিকিৎসকরা সর্বোচ্চ চেষ্টা করলেও আর সাড়া দেননি তিনি। ওয়ার্নের বয়স হয়েছিল ৫২ বছর।

অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ১৪৫ টেস্টে তিনি নিয়েছেন ৭০৮ উইকেট। ১৯৪ ওয়ানডেতে নিয়েছেন ২৯৩ উইকেট। তার বর্ণাঢ্য ক্যারিয়ারের ইতি ঘটে ১০০১ উইকেট নেওয়ার মাধ্যমে। ক্রিকেট ইতিহাসে ওয়ার্ন দ্বিতীয় সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি বোলার। তার আগে আছেন কেবল মুত্তিয়া মুরালিধরন।

সূত্র : রাইজিংবিডি
এন এইচ, ০৫ মার্চ

Back to top button