ফুটবল

বিলবাওয়ের জালে বার্সেলোনার ‘এক হালি’

লা লিগায় দারুণ সময় পার করছে বার্সেলোনা। ঘরের মাঠ ন্যু ক্যাম্পে রোববার রাতে অ্যাথলেটিক বিলবাওকে পাত্তাই দিল না অবামেয়াং-দেম্বেলেরা।

বিলবাওয়ের জালে এক হালি গোল জমা করে দাপুটে জয় তুলে নিয়েছে বার্সা। আর নিজেদের জাল রেখেছে সুরক্ষিত।

এ জয়ে ফেব্রুয়ারি মাস শেষে সেরা চারে জায়গা আরও মজবুত করল জাভি হার্নান্দেজের দল। এছাড়া এ তিন পয়েন্টে চ্যাম্পিয়নস লিগে বার্সার জায়গা পাওয়ার সম্ভাবনাকে আরও দৃঢ় করেছে।

রোববার ঘরের মাঠে ৭২ শতাংশ বল দখলে রাখে বার্সা। বিলবাওয়ের জাল বরাবর ১৭টি শট নিতে পারে বার্সা, যার মধ্যে ৭টিই ছিল লক্ষ্যে। অন্যদিকে বিলবাও নিতে পেরেছে মাত্র ৬টি শট, এর ৩টি ছিল লক্ষ্যে।

ম্যাচের শুরু থেকে শক্ত প্রতিরোধ গড়ে বিলবাও। ৩৬ মিনিট পর্যন্ত জাল সুরক্ষিত রাখে তারা। কিন্তু অবামেয়াংয়ের কাছে হার মানতে হয় বিলবাওয়ের ডিফেন্ডারদের।

৩৭তম মিনিটে পাওয়া কর্নারে জেরার্দ পিকের হেড ক্রসবারে বাধা পাওয়ার পর ফিরতি বল দারুণ ভলিতে জালে পাঠান অবামেয়াং।

১-০ গোলে এগিয়ে বিরতিতে যায় দুই দল।

দ্বিতীয়ার্ধে নেমে আক্রমণে আরও চাপ বাড়ায় বার্সা। প্রথমার্ধের মতোই প্রতিরোধ গড়ে বিলবাও। এবার ৬৭ মিনিটে গিয়ে দেম্বেলের কাছে হার মানে দলটি।

ফেররানের বদলি নামার ছয় মিনিট পরই চমৎকার এক গোল করেন উসমান দেম্বেলে। ফ্রেংকি ডি ইয়ংয়ের পাস ধরে বাঁ দিক দিয়ে ডি-বক্সে ঢুকে বুলেট গতির শটে ঠিকানা খুঁজে নেন ফরাসি ফরোয়ার্ড।

নির্ধারিত সময়ের শেষ মিনিটে দেম্বেলের ক্রসে লুক ডি ইয়ং হেডে ৩-০ করেন। আর যোগ করা সময়ের তৃতীয় মিনিটে কাছ থেকে শেষ গোলটি করে হালি পূরণ করেন আরেক বদলি ফরোয়ার্ড ডিপাই মেমফিস।

এ ফলাফলের পর ২৫ ম্যাচে ১২ জয় ও ৯ ড্রয়ে ৪৫ পয়েন্ট নিয়ে চতুর্থ স্থানে আছে বার্সেলোনা। এক ম্যাচ বেশি খেলা রিয়াল বেতিস তিন নম্বরে ৪৬ পয়েন্ট নিয়ে। ২৬ ম্যাচে ৬০ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে রিয়াল মাদ্রিদ।

সূত্র : যুগান্তর
এন এইচ, ২৮ ফেব্রুয়ারি

Back to top button