চট্টগ্রাম

সাতকানিয়ায় নির্বাচনী সহিংসতা: নিহত বেড়ে ২

চট্টগ্রাম, ০৭ ফেব্রুয়ারি – চট্টগ্রামের সাতকানিয়ার ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচন চলাকালে দুজনের মৃত্যু হয়েছে। উপজেলার নলুয়া ইউনিয়নে তাসিব (১৩) নামের এক কিশোর এবং বাজালিয়া ইউনিয়নে আবদুস শুক্কুর (৪০) নামের একজন নিহত হয়েছেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সাতকানিয়া উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আবু তালেব তালুকদার।

আজ দুপুর ১২টার দিকে নলুয়া ইউনিয়নের বোর্ড অফিস কেন্দ্রের বাইরে তাসিবকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। তার বাবার নাম জসিম উদ্দিন।

তাসিবের চাচা মিজানুর রহমান বলেন, কেন্দ্রের বাইরে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর অনুসারীরা মারামারি করছিলেন। একপক্ষ তাসিবকে কারও সমর্থক মনে করে কুপিয়ে জখম করেন। পরে তাকে সাতকানিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসকেরা মৃত ঘোষণা করেন। তাসিবের চাচা মিজানুর রহমান ৮ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য প্রার্থী।

নলুয়া ইউনিয়নের বোর্ড অফিস কেন্দ্রের ইনচার্জ আবদুল মতিন বলেন, কেন্দ্রের বাইরে একজনের মৃত্যু হয়েছে।

এদিকে সাতকানিয়ার বাজালিয়া ইউনিয়নে গুলিতে নিহত আবদুস শুক্কুর এই ইউপিতে নৌকার চেয়ারম্যান প্রার্থী তাপস কান্তি দত্তের অনুসারী।

সাতকানিয়া থানার সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) মুকিবুল হোসেন বলেন, বেলা ১১টার দিকে বাজালওলিয়া বোর্ড অফিস কেন্দ্রে শুক্কুর গুলিবিদ্ধ হন। দুই প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে মারামারির সময় এই ঘটনা ঘটে। পরে হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়।

উল্লেখ, চট্টগ্রামের সাতকানিয়ায় ১৬টি ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। এরমধ্যে ৪ ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থীরা বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন।

এসব ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন হচ্ছে না। তবে ইউপি সদস্য ও সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

এ চার ইউনিয়ন ছাড়া বাকি ১২টি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে, ইউপি সদস্য ও সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

সূত্র: বাংলাদেশ জার্নাল
এম ইউ/০৭ ফেব্রুয়ারি ২০২২

Back to top button