বিচিত্রতা

প্রস্রাব বিক্রি করেই মোটা অঙ্কের টাকা উপার্জন করেন তিনি

আজকাল অনেকেই অর্থ উপার্জনের জন্য এমন কিছু উপায় খুঁজে বের করছেন, যাতে তাদের যথাসম্ভব কম কাজ করতে হয় এবং তার বদলে বেশ ভালো অর্থ উপার্জন করা যায়। কেউ কেউ যেমন অনলাইনে ব্যবসা করছেন, কেউ আবার সোশ্যাল মিডিয়ায় ভিডিও তৈরি করে পোস্ট করছেন। অনেক ধরনের অনলাইন ব্যবসা থাকলেও কিছুদিন আগে পর্যন্তও কাউকে নিজের প্রস্রাব বিক্রি করে টাকা আয় করতে দেখা যায়নি। তবে এবার ঘটেছে তেমনই এক ঘটনা।

সম্প্রতি নিজের প্রস্রাব বিক্রি করার মতো অদ্ভুত কাজ করছেন এক মডেল, যা ইতিমধ্যেই আলোচিত হতে শুরু করেছে সোশ্যাল মিডিয়ায়, উঠে এসেছে বিভিন্ন পোস্ট বা ভিডিওর শিরোনামে। ক্যাকটাস কুটি নামের ওই মডেল তার প্রস্রাব অনলাইনে বিক্রি করছেন, আর তা থেকে উপার্জন করছেন বেশ মোটা অঙ্কের টাকা।

জেনে অবাক হবেন যে, তার একটি মেডিক্যাল কাপ অর্থাৎ ৩ আউন্স প্রস্রাব হাজার হাজার টাকায় বিক্রি হয়। অনেকের কাছেই এই ঘটনা বিরক্তিকর মনে হতে পারে, তবে এই বর্জ্য কেনার লোকের কিন্তু অভাব নেই।

‘ডেইলি স্টার’ এর প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ক্যাকটাস কুটি ‘ওনলি ফ্যান’ নামে একটি সাইটের একজন মডেল। ২০১৬ সাল থেকে এই অদ্ভুত ব্যবসা শুরু করেন তিনি। নিজের ভক্তদের জন্য শুধুমাত্র প্রস্রাব বিক্রিই নয়, ১০ মিনিটের জন্য প্রস্রাব করার একটি ভিডিও তৈরি করেছেন।

ক্যাকটাস একজন পেশাদার ফটোগ্রাফার হিসেবে কাজ করেন। তিনি জানান, তার ভিডিওগুলো সবার পছন্দ হয়েছে এবং তিনি এটির জন্য বিশেষ অনুশীলন করেছেন। অনেকেই অবশ্য ভাবতে পারেন একজন ১০ মিনিট ধরে কিভাবে প্রস্রাব করতে পারেন? তবে রোজ নয়, কুটি এই কাজ প্রতি মাসে ১-২ বার করে দেখান, কারণ এই অভ্যাস তার স্বাস্থ্যের ক্ষতি করতে পারে।

সম্প্রতি ভক্তরা ক্যাকটাস কুটির প্রস্রাব ধরে রাখার ক্ষমতা দেখে এতটাই মুগ্ধ যে তারা তার প্রস্রাব কিনে নিতেও প্রস্তুত। প্রস্রাব পূর্ণ একটি ৩ আউন্স বা এক মেডিক্যাল কাপের দাম বাংলাদেশি টাকায় প্রায় ৬ হাজার টাকা। যারা কুটির কাছ থেকে বেশি প্রস্রাব কেনেন, সেই সব গ্রাহকদের এতে ছাড়ও দেওয়া হয়। ওই মডেল এটাও দাবি করেছেন যে, গ্রাহকরা এই প্রস্রাবকে বরফের আকারে জমিয়েও রাখে।

এন এইচ, ১৯ জানুয়ারি

Back to top button