সিরাজগঞ্জ

সিরাজগঞ্জে আ’লীগ-বিএনপি সংঘর্ষ, আহত ৭০

সিরাজগঞ্জ, ৩০ ডিসেম্বর – সিরাজগঞ্জে বিএনপির সমাবেশকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগ নেতা-কর্মীদের সঙ্গে সংঘর্ষে উভয়পক্ষের অন্তত প্রায় ৭০ নেতা-কর্মী আহত হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার (৩০ ডিসেম্বর) দুপুরে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে সমাবেশে আসা মিছিলকে কেন্দ্র করে এ সংঘর্ষের সূত্রপাত ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, উভয়পক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা-ধাওয়া, ককটেল বিস্ফোরণ, ইট-পাটকেল নিক্ষেপের একপর্যায়ে জেলা শহরের কলেজ রোড, ইলিয়ট ব্রিজ এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়েছে। সংঘর্ষ নিয়ন্ত্রণে টিয়ার শেল ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে পুলিশ। এ ঘটনায় উভয়পক্ষের আহত হয়েছেন অন্তত ৭০ নেতা-কর্মী।

জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক সাইদুর রহমান বাচ্চু বলেন, খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে আয়োজিত সমাবেশে মিছিল নিয়ে আসার পথে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে যুবলীগ ও ছাত্রলীগের সন্ত্রাসীরা হামলা চালায়। এতে উভয়পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ শুরু হয়। এ সময় ইট-পাটকেল নিক্ষেপে আমাদের প্রায় অর্ধ শতাধিক নেতা-কর্মী আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে বেশ কয়েকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

এদিকে, জেলা যুবলীগের সভাপতি রাশেদ ইউসুফ জুয়েল বলেন, মিছিল নিয়ে সমাবেশে যাওয়ার পথে উস্কানিমূলক বক্তব্য দেয় এবং আমাদের ব্যানার ও ফেস্টুন ছিড়ে ফেলে এবং হামলা-ভাঙচুর শুরু করে বিএনপির নেতা-কর্মীরা। প্রতিবাদ করতে গেলে সংঘর্ষ বাঁধে। এতে আমাদের অন্তত ২০-২৫ জন নেতা-কর্মী আহত হয়েছেন।

সিরাজগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শারাফত হোসেন বলেন, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। জেলা শহরের বিভিন্ন পয়েন্টে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

বিকেল ৫টা পর্যন্ত জেলা শহরের কাটাখালির তিনটি সেতুকে ঘিরে থেমে থেমে সংঘর্ষ চলছে।

অন্যদিকে, জেলা শহরের ইসলামিয়া কলেজ মাঠে বিএনপির সমাবেশে হয়েছে। সেখানে দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকুসহ কেন্দ্রীয় নেতারা বক্তব্য রাখেন।

সূত্র: বাংলানিউজ
এম ইউ/৩০ ডিসেম্বর ২০২১

Back to top button

This will close in 20 seconds