ফেনী

ফেনীতে ১৪৪ ধারা ভেঙে বিএনপির পথসভা

ফেনী, ২৯ ডিসেম্বর – ফেনীতে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি ও বিদেশে চিকিৎসার দাবিতে ১৪৪ ধারা ভেঙে পথসভা করেছে বিএনপি। এ সময় পুলিশ সঙ্গে ধস্তাধস্তি হয়েছে নেতাকর্মীদের।

এর আগে বুধবার দুপুরে ফেনী শহরের ওয়াপদা মাঠে সমাবেশের ডাক দেয় জেলা বিএনপি। একই সময় জেলা যুবলীগ সমাবেশের ডাক দিলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে রাখতে জেলা প্রশাসন ১৪৪ ধারা জারি করে।

এ বিষয়ে ফেনী পৌর বিএনপির সদস্যসচিব মেসবাহ উদ্দিন বলেন, ‘এটা আমাদের পূর্বনির্ধারিত জনসভা। সকাল থেকে নেতা-কর্মীরা শহরের ইসলামপুর রোডে বিএনপির অস্থায়ী কার্যালয়ের সামনে জড়ো হয়। কিন্তু সকাল ১০টার দিকে পুলিশ এসে তাদের ছত্রভঙ্গ করে দিতে চায়। এ সময় নেতা-কর্মীদের সঙ্গে তাদের বাগবিতণ্ডা ও হাতাহাতি হয়। পরে অবশ্য কেন্দ্রীয় নেতাদের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে।’

পরে পুলিশের উপস্থিতিতে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য দেন বিএনপি নেতারা। বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা জয়নাল আবদীন, বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সহসাংগঠনিক সম্পাদক হারুনুর রশিদ, সহদপ্তর সম্পাদক বেলাল আহম্মেদ সেখানে ছিলেন।

সে সময় মেসবাহ উদ্দিন বলেন, ‘বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি ও বিদেশে চিকিৎসার দাবিতে পূর্বনির্ধারিত কর্মসূচি পালন করছি আমরা। কর্মসূচি ভণ্ডুল করতে যুবলীগ অজাচিত সমাবেশ ডেকেছে আর প্রশাসন ১৪৪ ধারা জারি করেছে। এভাবে করে আন্দোলন দমিয়ে রাখা যাবে না।’

বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা জয়নাল আবদীন বলেন, ‘বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি ও বিদেশে চিকিৎসা সুনিশ্চিত করতে আন্দোলনের মাধ্যমে সরকারকে বাধ্য করা হবে।’

জেলা বিএনপির সদস্যসচিব আলাল উদ্দিন আলাল ১৪৪ ধারা ভঙ্গ সম্পর্কে বলেন, ‘এই ১৪৪ ধারা অন্যায়। এর বিরুদ্ধে সকাল থেকে শহরের বিভিন্ন জায়গা জড়ো হয়ে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন আমাদের নেতাকর্মীরা।’

ফেনী থানার পরিদর্শক (অপারেশন) মাহফুজুল হক বলেন, ‘বিএনপি নেতা-কর্মীরা জড়ো হওয়ার চেষ্টা করলে পুলিশ তাদের বুঝিয়ে এলাকা থেকে সরিয়ে দিয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে।’

সূত্র : বাংলাদেশ জার্নাল
এন এইচ, ২৯ ডিসেম্বর

Back to top button