নাটক

ছোট ভুলে বড় মামলায় আফরান নিশো-মেহজাবীন

ঢাকা, ২৮ ডিসেম্বর – ছোটপর্দার দর্শকপ্রিয় তারকা জুটি আফরান নিশো ও মেহজাবীন চৌধুরী। গত ১১ আগস্ট ঢাকার অ্যাডিশনাল চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আবু বকর ছিদ্দিকীর আদালতে বশির আল হোসাইন নামে একজন প্রতিবন্ধী অধিকারকর্মী এ দুই তারকার বিরুদ্ধে মামলা করেন। নিশো-মেহজাবীন অভিনীত ‘ঘটনা সত্য’ নামের একটি নাটক নিয়ে এই জটিলতা তৈরি হয়। যা চ্যানেল আইয়ে ঈদুল আজহার আয়োজনে ২৩ জুলাই প্রচার হয়েছিল।

মামলার অভিযোগে বলা হয়, ‘ঘটনা সত্য’ নাটকে দেখানো সংলাপে প্রতিবন্ধী ব্যক্তি ও তাদের বাবা-মা ও পরিবারকে ‘ঝুঁকির মুখে ঠেলে দেওয়া হয়েছে।’ এ ধরনের নেতিবাচক শব্দ ব্যবহারের মাধ্যমে প্রতিবন্ধী ব্যক্তির অধিকার ও সুরক্ষা আইনের ‘স্পষ্ট লঙ্ঘন’।

এ ছাড়াও চলতি বছর আরো কয়েকজনের নামে মামলা হয়েছে। রিয়েলিটি শো ক্লোজআপ ওয়ান তারকা সাজু আহমেদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন তার মা রানীজান বেগম। ‘হত্যার উদ্দেশে হামলা ও গুরুতর জখম’—এমন অভিযোগে কুড়িগ্রাম জেলার উলিপুর থানায় এজাহার দায়ের করেন তিনি।

গত ৫ সেপ্টেম্বর এজাহারটি মামলা হিসেবে রেকর্ড হয়। জমিজমা সংক্রান্ত পারিবারিক কলহের জেরে ‘সাজুর ছোড়া ঢিলে’ মাথায় আঘাতপ্রাপ্ত হলে কপাল কেটে যায় তার মা রানীজান বেগমের। পরে স্বজনরা তাকে উদ্ধার করে কুড়িগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করান। হামলার অভিযোগে মা বাদি হয়ে মামলা করলেও নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে অসুস্থ মায়ের জন্য দোয়া চেয়ে পোস্ট দেন সাজু আহমেদ। বিষয়টি প্রকাশ্যে আসার পর সমালোচনার মুখে পড়েন এই কণ্ঠশিল্পী।

পাশাপাশি চলতি বছর ছোটপর্দার অভিনেতা মুশফিক রহমান ফারহানের বিরুদ্ধে থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন এক তরুণী। গত ২৭ মে রাজধানীর শেরেবাংলা নগর থানায় তার বিরুদ্ধে জিডি করেন ওই তরুণী। তিনি জানান, মুশফিকুর রহমান ফারহানের সঙ্গে তার পাঁচ বছরের প্রেমের সম্পর্ক। এ সময়ে ফারহান তাকে অত্যাচার করেছেন। সম্পর্ক ত্যাগের কথা বললেই ফারহান হুমকি দিতেন। গত ২৬ মে তরুণীর পুরো পরিবারকে ‘ধ্বংস’ করে দেয়ার হুমকি দেন ফারহান। এরপরই জিডি করেন তিনি।

ছোটপর্দার অভিনেতা তৌসিফ মাহবুবের বিরুদ্ধে অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন সামছুন্নার কনা নামে এক তরুণী। গত ১৬ জানুয়ারি নগরীর হাতিরঝিল থানায় জিডি করেন কনা।

এন এইচ, ২৮ ডিসেম্বর

Back to top button