বিচিত্রতা

সংবিধানকে সাক্ষী রেখে বিয়ে, উপহার রক্তদান!

এই বিয়েতে ছিলো না কোনও শাস্ত্রজ্ঞ পুরোহিত বা মন্ত্রোচ্চারণ। আগুণকে সাক্ষী রেখে সাত বার ঘোরা পাত্রপাত্রীর? না, সেটাও ছিল না। এই বিয়ের অভিনবত্ব হলো, ভারতীয় সংবিধানকে সাক্ষী রেখে বিয়ে করলেন দুজনে।

ওড়িষ্যার গঞ্জাম জেলায় বিয়ে হলো ২৯ বছরের বিজয় কুমার, ২৭ এর শ্রুতি সাক্সেনার। বিজয় ওড়িষ্যার বেরহামপুরের বাসিন্দা, শ্রুতি উত্তরপ্রদেশের মেয়ে। দুজনে কাজ করেন চেন্নাইয়ের এক বেসরকারি সংস্থায়।

দেশের তিন ভিন্ন রাজ্যের মহাযোগ ঘটেছে বিয়েতে। পাত্র শুধু পাত্রীর গলায় মালা পরিয়ে দিলেন, তারপরই সংবিধান ছুঁয়ে নতুন জীবনের শপথ নিলেন তারা।

নবদম্পতি অতিথিদের আশীর্বাদ নিয়ে দামী উপহার সামগ্রীর বদলে রক্তদানের আবেদন করলেন। সেই আবেদন মেনে রিসিপশন স্থলের কাছেই বসল রক্তদান শিবির। মরণোত্তর দেহদানের শপথ নিতেও আবেদন করলেন আমন্ত্রিতদের।

বিজয়ের বাবা ড. মোহন রাও জানালেন, ২০১৯ সালে তার বড় ছেলেও পাত্রীপক্ষকে রাজি করিয়ে একই কায়দায় বিয়ে করেছিলেন। এবারও বিজয়ের পরিবার শ্রুতির অভিভাবকদের বুঝিয়ে সম্মতি নেয়। ঠিক হয়, প্রচলিত হিন্দু ধর্মীয় রীতিনীতির বদলে সংবিধানের নামে নবদম্পতি শপথ নেবে বিয়েতে।

এন এইচ, ২৫ ডিসেম্বর

Back to top button