জাতীয়

স্বাধীনতাবিরোধী শক্তিতে পরিণত হয়েছে আ.লীগ: ফখরুল

ঢাকা, ২০ ডিসেম্বর – ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ স্বাধীনতার বিরোধীশক্তিতে পরিণত হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, আমাদের সমস্ত রাজনৈতিক প্রতিষ্ঠানগুলো, শিক্ষা ব্যবস্থা, বিচার, প্রশাসন- সবকিছুকে ধ্বংস করে ফেলেছে আওয়ামী লীগ। আমাদের অর্থনীতিকে একটা পরনির্ভরশীল অর্থনীতিতে পরিণত করেছে তারা।

সোমবার মহানগর নাট্যমঞ্চে বিএনপির উদ্যোগে মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, ‘বাংলাদেশে উন্নয়নের নাকি বন্যা বইয়ে দিয়েছে আওয়ামী লীগ। কিন্তু স্বাধীনতার এই ৫০ বছরে দেশের গরীর আরও গরীব হয়েছে। আর আওয়ামী লীগের সহায়তাপুষ্ট, মদদপুষ্টরা আরও ধনী হয়েছে। দেশের কৃষকেরা পণ্যের দাম পাচ্ছে না, শ্রমিকেরা ন্যায্য পাওনা মজুরি পাচ্ছে না। যে আশা-আকাঙ্খাকে সামনে রেখে, যে স্বপ্নকে ধারণ করে মুক্তিযুদ্ধ করেছিলাম স্বাধীনতার ৫০ বছর পরে আমাদের পরাজয়ের গ্লানি বহন করতে হচ্ছে। মুক্ত সমাজ, গণতান্ত্রিক সমাজ তৈরি করতে পারিনি।’

তিনি আরও বলেন, ‘খালেদা জিয়া এদেশের প্রথম নারী মুক্তিযোদ্ধা। ১৯৭১ সালে তিনি তার দুই শিশু তারেক রহমান ও আরাফাত রহমান কোকোর হাত ধরে মুক্তিযুদ্ধে অংশ নিয়েছিলেন। পাকিস্তান সেনাবাহিনী দ্বারা গ্রেপ্তার হয়ে ১৬ ডিসেম্বর পর্যন্ত তিনি ক্যান্টনমেন্টের কারাগারে বন্দি ছিলেন। আজকে আওয়ামী লীগ সরকার তাকে মিথ্যা মামলা দিয়ে আটক করে রেখেছে। এখন তিনি জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে, মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছেন। এর অর্থ হচ্ছে এই আওয়ামী লীগ আজকে স্বাধীনতাবিরোধী শক্তিতে পরিণত হয়েছে।’ এই অবস্থা থেকে উত্তরণে সবাইকে ঐক্য হয়ে সরকারের বিরুদ্ধে গণঅভ্যুত্থান সৃষ্টির আহ্বান জানান বিএনপি মহাসচিব।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, ‘এই সরকার দানবীয় সরকার। আজকে মানবাধিকার লঙ্ঘনের জন্য বাংলাদেশের একটি সংস্থার কর্মকর্তাদের নিষিদ্ধ করেছে যুক্তরাষ্ট্র। এটা আমাদের জন্য লজ্জার খবর।’

বিএনপি মহাসচিবের সভাপতিত্বে ও প্রচার সম্পাদক শহিদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানির পরিচালনায় সভায় বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস, নজরুল ইসলাম খান, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, সেলিমা রহমান, ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু, ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আবদুস সালাম, আবুল খায়ের ভুঁইয়া, কেন্দ্রীয় নেতা খায়রুল কবির খোকন, আবদুস সালাম আজাদ, মহানগর দক্ষিণ বিএনপির রফিকুল আলম মজনু, উত্তরের আমিনুল হক, যুবদলের সাইফুল আলম নিরব, স্বেচ্ছাসেবক দলের মোস্তাফিজুর রহমান প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

সূত্র: সমকাল
এম ইউ/২০ ডিসেম্বর ২০২১

Back to top button