দক্ষিণ এশিয়া

‘সৎ, দুর্নীতিমুক্ত সরকার গড়তে চাই’, গোয়ায় তৃণমূলের সঙ্গে জোট নয়: আম আদমি পার্টি

মুম্বাই, ১৩ ডিসেম্বর – দলের সর্বভারতীয় স্তরে অস্তিত্ব প্রমাণের লড়াইয়ে নেমেছেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্য়োপাধ্যায়। আর তার জন্য বাংলার বাইরে দলের সম্প্রসারণে বিশেষ নজর দিয়েছেন তিনি। একই ধরনের দলীয় সম্প্রসারণের উদ্যোগ নিয়েছে ‘বন্ধু’ দল আম আদমি পার্টিও। মমতা এবং কেজরিওয়াল দু’জনেরই নজরে গোয়া বিধানসভা নির্বাচন। এরই মধ্যে রবিবার গোয়ায় উড়ে গিয়েছেন মমতা। আর ঠিক তাঁর গোয়া যাত্রার সময়েই তৃণমূল নেত্রীর অস্বস্তি আরও বাড়িয়ে দিল আম আদমি পার্টি।

আম আদমি পার্টির তরফে, রবিবার বিকেলে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, গোয়ায় আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে মমতার তৃণমূলের সঙ্গে কোনও জোট করবেন না তাঁরা। কেজরিওয়ালের দলের গোয়া শাখার দায়িত্বে থাকা অতিসি মারলেনা জানিয়ে দিয়েছেন, গোয়ায় এক নতুন বিকল্প সরকার গঠন করতে চায় আম আদমি পার্টি। ভাল প্রার্থীদের জিতিয়ে সৎ এবং দুর্নীতিমুক্ত সরকার গঠন করতে চান তাঁরা। এই পরিস্থিতিতে মমতা-কেজরির ‘দোস্তি’ সৈকত শহরে আদৌ দেখা যাবে কি না, তা নিয়ে ইতিমধ্যেই প্রশ্ন তুলে দিয়েছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।

আম আদমি পার্টির নেত্রী অতিসি মারলেনা আজ এক টুইটে জানিয়েছেন, “আমি সম্পূর্ণ দায়িত্ব নিয়ে বলছি যে তৃণমূলের সঙ্গে জোট হবে না। তাই তাদের সঙ্গে কোনও আলোচনার প্রশ্নই আসে না। আমরা গোয়াকে ভাল প্রার্থী দিয়ে একটি নতুন বিকল্প দিতে চাই এবং এক সৎ দুর্নীতিমুক্ত সরকার গঠন করতে বদ্ধপরিকর।”

উল্লেখ্য, সম্প্রতি সংবাদ মাধ্যমের একাংশে প্রকাশিত হয়েছিল, আম আদমি পার্টি গোয়াতে তৃণমূলের সঙ্গে জোট গঠন করতে চাইছে। তৃণমূল এখনও এই প্রস্তাবের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়নি, তবে উভয় পক্ষই এই বিষয়ে আলোচনা চলছে। সেই প্রতিবেদন তুলে ধরেই পশ্চিমবঙ্গের এক টুইটার ব্যবহারকারী অতসিকে প্রশ্ন করেছিলেন। তার জবাবেই অতসি এই কথা জানিয়েছেন।

গোয়া বিধানসভা নির্বাচনে এককভাবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন অরবিন্দ কেজরিওয়াল। এর আগে ২০১৭ সালেও আম আদমি পার্টি গোয়া বিধানসভা নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছিল, কিন্তু একটি আসনও জিততে পারেনি।

এদিকে গোয়ায় তৃণমূল সংগঠন বিস্তার করার পর এই নিয়ে দ্বিতীয় বার সে রাজ্যের উদ্দেশে রওনা দিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। গোয়ায় তৃণমূলের সংগঠন বাড়াতে ও নির্বাচনী প্রচার কোনপথে চলবে, তা ঠিক করে দেবেন দলনেত্রী। তৃণমূলকে ক্ষমতায় আনতে কোন কোন কাজের ওপর বিশেষ জোর দেওয়া হবে, তাও প্রচারে নেমে সাধারণ মানুষের সামনে তুলে ধরার চেষ্টা করবেন তিনি।

গোয়া বিধানসভা নির্বাচনের জন্য পাঁচটি প্রতিশ্রুতির পরিকল্পনা করেছে তৃণমূল কংগ্রেস, আপাতত দলের তরফে তিনটি প্রতিশ্রুতির কথা জানানো হয়েছে। গতকালই তৃণমূলের তরফে ঘোষণা করা হয়, বিধানসভা নির্বাচনে ক্ষমতায় এলে চালু করা হবে গৃহলক্ষী স্কিম। এই প্রকল্পের অধীনে গোয়ার মহিলারা মাসে ৫ হাজার টাকা করে পাবেন।

এন এইচ, ১৩ ডিসেম্বর

Back to top button