মডেলিং

হিরো আলমের ‘ব্লু-ব্যাজ’ কেড়ে নিলো ফেসবুক!

ঢাকা, ১২ ডিসেম্বর – একের পর এক চমক দেখিয়েছেন হিরো আলম। তবে তার যেমন ভক্ত রয়েছে, তেমনি সমালোচকের সংখ্যাও কম নয়। হিরো আলমকে নিয়ে আলোচনা করা যায়, কিন্তু তাকে এড়িয়ে যাওয়া যায় না। আলোচনা-সমালোচনার তোয়াক্কা না করে আপন মনে কাজ করে যাচ্ছেন সোশ্যাল মিডিয়ার ভাইরাল মুখ হিরো আলম।

সামাজিক যোগাযোগের জনপ্রিয় মাধ্যম ফেসবুকে হিরো আলমের অনুসারীর সংখ্যা নেহাৎ কম নয়। মিলিয়ন অনুসারীর ঘরে বেশ আগেই ঢুকেছেন তিনি। তার অফিসিয়াল ফেসবুক পেজটিও ছিলো ভেরিফায়েড। মূলত ফেসবুক ব্যবহারকারীর নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের অ্যাকাউন্ট ভ্যারিফিকেশনের ব্যবস্থা চালু আছে। যেখানে অ্যাকাউন্টের নামের পাশে নীল রঙের একটি টিক চিহ্ন থাকে। ফেসবুকে নীল বৃত্তাকারে সাদা এ টিক চিহ্নকে বলা হয় ‘ব্লু-ব্যাজ’। কিন্তু হঠাৎ হিরো আলমের নামের পাশের সেই ব্লু-ব্যাজ উধাও!

এ প্রসঙ্গে হিরো আলমের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, ‘আমি বুঝতে পারছি না কেন এমন হলো। হতে পারে কেউ আমার বিরুদ্ধে ফেসবুক কর্তৃপক্ষের কাছে রিপোর্ট করেছে। আমি নিশ্চিত না হয়ে এ বিষয়ে কিছু বলতে পারছি না। আপনারা জানেন, আমার পেছনে কেউ না লাগলে আমি কারও পেছনে লাগি না।’

তিনি আরও জানান, ‘কেন ব্লু-ব্যাজ সরানো হলো সে বিষয়ে খোঁজ নিচ্ছি। প্রকৃত কারণ জেনে অবশ্যই আপনাদের জানাবো। ব্লু-ব্যাজ ফিরিয়ে আনার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিবো।’

গেলো শুক্রবার (১০ ডিসেম্বর) ‘পালালো পালালো মুরাদ হাসান’ শিরোনামে একটি গান নিজের অফিশিয়াল ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশ করেন হিরো আলম। তার ফেসবুক পেজেও গানটির ভিডিও ভেসে বেড়াতে দেখা যায়। ঘটনাক্রমে সেদিন থেকেই তার পেজের ব্লু-ব্যাজ উধাও! তবে এখনো পেজে নিজের সব কাজের আপডেট দিচ্ছেন হিরো আলম।

রোববার (১২ ডিসেম্বর) সকাল ৮টার দিকে এক স্ট্যাটাসে তিনি জানিয়েছেন, নতুন গান ‘মুরাদ হাসানের টেনশন’ আসবে আজ সন্ধ্যা ৭ টায়। এই পোস্টের আগে একটি ভিডিওতে গানের রেকর্ডিংয়ের কিছু মুহূর্ত শেয়ার করেন হিরো আলম। সেখানে তাকে গাইতে শোনা যায়, ‘পানি গরগরাইয়া পরতাছে, মুরাদ হাসান কানতেছে, ঢুকতে পারেনি কানাডা…’।

সেই ভিডিওতে তিনি বলেন, ‘আপনাদের কালকে আমি বলেছিলাম, মুরাদ হাসানের একটা ফুল গান আপনাদের শোনাবো। একটু র‍্যাপ স্টাইলে গানটা করেছি। আশা করি আপনাদের ভালো লাগবে। আপনারা আমার পাশে থাকবেন, আমি আপনাদের বিনোদন দিয়ে যাবো।’

এর আগে গতকাল (১১ ডিসেম্বর) নিজের ইউটিউব চ্যানেলে একটি ভিডিওতে ডা. মুরাদের বিষয়ে নতুন বার্তা দিয়েছেন হিরো আলম। তিনি বলেন, ‘মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে আমার অনুরোধ, যে সমস্ত এমপিরা ক্ষমতার দাপট দেখাচ্ছেন তাদের আইনের আওতায় এনে শাস্তির ব্যবস্থা করবেন। বহিষ্কার করলে তারা ঠিক হবে না। ‘

হিরো আলমের ভাষ্য, ‘আইন সবার জন্য সমান। সে মন্ত্রী হোক, এমপি হোক আইনের ঊর্ধ্বে কেউ না। ডা. মুরাদ হাসান অতিরিক্ত বাড়ার কারণে তার পতন হয়েছে।’

এম এস, ১২ ডিসেম্বর

Back to top button