জাতীয়

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানকে ডোপ টেস্টের আওতায় আনার সুপারিশ সংসদীয় কমিটির

ঢাকা, ০৭ নভেম্বর – মাদক নিয়ন্ত্রণে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও জেলা কারাগারকে ডোপ টেস্টের আওতায় আনার সুপারিশ করেছে সংসদীয় কমিটি।

রোববার (৭ নভেম্বর) জাতীয় সংসদের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির বৈঠকে এ সুপারিশ করা হয়।

কমিটির সভাপতি মো. শামসুল হক টুকুর সভাপতিত্বে জাতীয় সংসদ ভবনে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

বৈঠকে কমিটির সদস্য ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন, কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা, পীর ফজলুর রহমান, নূর মোহাম্মদ, সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমদ এবং বেগম রুমানা আলী অংশ নেন।

কমিটি ১৬তম ও ১৭তম বৈঠকের কার্যবিবরণী নিশ্চিত করে। একইসঙ্গে ১৭তম বৈঠকের সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন ও অগ্রগতির বিষয়ে কমিটিকে অবগত করা হয়।

বাংলাদেশ পুলিশের সার্বিক কার্যক্রম এবং মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের সার্বিক কার্যক্রমের ওপর প্রতিবেদন উপস্থাপন এবং আলোচনা করা হয়। পুলিশ সদস্যদের মধ্যে ডোপ টেস্ট চলমান থাকায় কমিটি ধন্যবাদ জানায়।

এ চলমান প্রক্রিয়া আরো জোরদার করা, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও জেলা কারাগারকে ডোপ টেস্টের আওতায় আনাসহ স্কুল ও কলেজের সামনে/গেটে পান/সিগারেটের দোকানসহ অন্য কোন দোকান স্থাপন না করতে পারে সে বিষয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে পত্র দেওয়ার জন্য সুপারিশ করা হয়।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের আয়োজনে জেলা পর্যায়ে মাদকবিরোধী সভা করা যা পর্যায়ক্রমে উপজেলায় সভা করার জন্য কমিটি সুপারিশ করে।

৭ নভেম্বর বাংলাদেশের ইতিহাসে একটি কালো দিন এবং বীর মুক্তিযোদ্ধা সৈনিক ও অফিসার হত্যা দিবস। এ দিনে শাহাদাতবরণকারী সবার আত্মার মাগফেরাত কামনা করা হয়। কমিটি এ জঘন্যতম হত্যার নিন্দা জানায়।

বৈঠকে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের সিনিয়র সচিব, সুরক্ষা সেবা বিভাগের সচিব, পুলিশ মহাপরিদর্শক এবং দুই বিভাগের অধীনস্থ সংস্থাগুলোর প্রধান ও জাতীয় সংসদ সচিবালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

সূত্র: বাংলানিউজ
এম ইউ/০৭ নভেম্বর ২০২১

Back to top button