জাতীয়

এরিককে নিয়ে রওশনকে দেখে এলেন বিদিশা

ঢাকা, ৩১ অক্টোবর – সংসদের বিরোধীদলীয় নেতা ও জাতীয় পার্টির প্রধান পৃষ্ঠপোষক রওশন এরশাদকে হাসপাতালে দেখে এলেন বিদিশা সিদ্দিক।

রোববার সকাল ১১টার দিকে ছেলে শাহতা জারাব এরিককে সঙ্গে নিয়ে ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) রওশন এরশাদকে দেখতে যান বিদিশা।

রওশন এরশাদকে দেখার পরে বিদিশা সিদ্দিক বলেন, ম্যাডামের (রওশন এরশাদ) শারীরিক অবস্থা খুব দুর্বল। উনার কথা জড়িয়ে যাচ্ছে।

কিছুক্ষণ তারা রওশন এরশাদের পাশে ছিলেন জানিয়ে বিদিশা বলেন, আমার ও এরিকের কথা তিনি শুনেছেন। আমি উনাকে বলেছি, শাদের জন্য কোনো চিন্তা করবেন না। আমরা আছি। এসময় উনার পাশে দাঁড়িয়ে তার সুস্থতার জন্য দোয়া করেন বলেও জানান তিনি।

রওশন এরশাদের শারীরিক অবস্থার প্রসঙ্গে তার ছেলে শাদ এরশাদ জানিয়েছেন, এখন তার মায়ের অবস্থা উন্নতির দিকে।

গত ১৪ আগস্ট ফুসফুসের জটিলতা দেখা দেয়ায় রওশন এরশাদকে সিএমএইচে ভর্তি করা হয়। এরপর হাসপাতালে তিনি টানা ৭২ দিন ধরে রয়েছেন। এখন তিনি সিএমএইচে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তবে বর্তমানে তাকে অক্সিজেন দেয়া লাগছে না।

গত ১৪ জুলাই জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের মৃত্যুবার্ষিকীতে এরশাদ পুত্র এরিক তার সৎ মা রওশন এরশাদকে জাতীয় পার্টির নতুন চেয়ারম্যান ঘোষণা দেন। তবে এরপর দল থেকে জানানো হয় রওশন এরশাদ জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হতে আগ্রহী নন।

এদিকে বিদিশা এরশাদের সঙ্গে বিয়ের সূত্রে জাতীয় পার্টিতে পদ নিয়ে সক্রিয় হয়েছিলেন। তবে এরশাদের সঙ্গে বিচ্ছেদের পর দল থেকেও হারিয়ে যান। কিন্তু এখন আবার তিনি জাতীয় পার্টিতে সক্রিয় হতে চাইছেন। এজন্য তিনি জাতীয় পার্টির পুনর্গঠনেরও দাবি জানিয়েছেন।

এরশাদের মৃত্যুর পর তার ভাই জিএম কাদের জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। বর্তমানে সংসদে বিরোধীদলীয় উপনেতার দায়িত্বে রয়েছেন তিনি।

সূত্র: বাংলাদেশ জার্নাল
এম ইউ/৩১ অক্টোবর ২০২১

Back to top button