দক্ষিণ এশিয়া

তীব্র খাদ্য সংকটে আফগানিস্তান

কাবুল, ২৫ অক্টোবর – জাতিসংঘের বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচি (ডব্লিউএফপি) সতর্ক করে বলেছে, জরুরি ভিত্তিতে পদক্ষেপ নেওয়া না হলে এই শীতের মৌসুমে ভয়াবহ খাদ্য সংকটে পড়তে পারেন আফগানিস্তানের লাখ লাখ মানুষ।

ডব্লিউএফপির নির্বাহী পরিচালক ডেভিড বিসলে বলেন, বিশ্বে সবচেয়ে ভয়াবহ মানবিক সংকটে থাকা দেশগুলোর মধ্যে রয়েছে আফগানিস্তান।

গত ১৫ আগস্ট আফগানিস্তানের নিয়ন্ত্রণ নেয় তালেবান। তারপর থেকেই দেশটির অর্থনীতিতে ধস নেমে আসে। বিশেষ করে যুক্তরাষ্ট্র দেশটির কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সাড়ে নয়শ কোটি ডলারের সম্পদ জব্দ করার পর পরিস্থিতির আরও অবনতি হয়েছে।

আফগানিস্তানের নতুন তালেবান সরকারকে আনুষ্ঠানিকভাবে এখনও স্বীকৃতি দেয়নি কোনো দেশ। তবে চীন, পাকিস্তানের মতো দেশগুলো আফগানিস্তানকে সমর্থন জানিয়েছে এবং বিভিন্ন সময় সাহায্য, সহযোগিতাও দিয়ে আসছে। তবে আফগানিস্তানের অর্থনীতিতে এখনও তেমন কোনো পরিবর্তন আসেনি। দেশটিতে বহু মানুষ এখনও খাদ্য ও মানবিক সংকটে দিন কাটাচ্ছেন।

ডব্লিউএফপি বলছে, দেশটির মোট জনসংখ্যার অর্ধেকের বেশি অর্থাৎ ২২ কোটি ৮০ লাখ মানুষ তীব্র খাদ্য সংকটে দিন কাটাচ্ছেন। অপরদিকে পাঁচ বছরের কম বয়সী ৩২ লাখ শিশু ভয়াবহ অপুষ্টির শিকার হতে পারে বলেও সতর্ক করা হয়েছে। সংস্থাটি বলছে, আমরা ভয়াবহ বিপর্যয়ের দিকে যাচ্ছি।

একটি দেশকে মানবিক সহায়তার ওপর নির্ভরশীল হিসেবে তখনই বিবেচনা করা হয় যখন এর মোট জিডিপির ১০ শতাংশ বা তার বেশি বিদেশি সহায়তা থেকে আসে। বিশ্ব ব্যাংকের তথ্য অনুযায়ী, আফগানিস্তানের ক্ষেত্রে জিডিপির প্রায় ৪০ শতাংশই আসে আন্তর্জাতিক সহায়তা থেকে।

সূত্র: জাগো নিউজ
এম ইউ/২৫ অক্টোবর ২০২১

Back to top button