দক্ষিণ এশিয়া

প্রিয়াঙ্কার সঙ্গে সেলফি তোলায় পুলিশ সদস্যদের নোটিস

নয়াদিল্লি, ২২ অক্টোবর – ভারতের আগ্রায় পুলিশ হেফাজতে মৃত দলিতকর্মীর পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে যাওয়ার পথে গতকাল আটক হন কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। সেই সময় তার সঙ্গে সেলফি তুলতে দেখা যায় বেশ কয়েকজন নারী পুলিশ কনস্টেবলকে। দেখতে দেখতে ভাইরাল হয়ে যায় সেই ছবি। তাই শাস্তির মুখে পড়তে চলেছেন ওই কনস্টেবলররা।

ছবিতে দেখা গেছে, কংগ্রেস নেত্রী ও নারী কনস্টেবলরা সবাই মিলে হাসিমুখে ছবি তুলছেন। যা নিয়ে শুরু হয় বিতর্ক। লখনউয়ের পুলিশ কমিশনার ডি কে ঠাকুর সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর সঙ্গে যে নারী কনস্টেবলরা ছবি তুলেছেন তাদের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

এই সংবাদ জানতে পেরে ক্ষুব্ধ হয়েছেন প্রিয়াঙ্কা। তিনি জানিয়েছেন, যদি আমার সঙ্গে ছবি তোলা অপরাধ হয়, তাহলে আমাকে শাস্তি দেওয়া হোক। ওই নারী কনস্টেবলদের অভিযুক্ত করা হচ্ছে কেন?

পরে টুইটা বার্তায় ভারতের উত্তর প্রদেশের যোগী সরকারকেও কটাক্ষ করতে ছাড়েননি প্রিয়ঙ্কা। তিনি লিখেন, যদি আমার সঙ্গে ছবি তোলাটা অপরাধ হয়, তাহলে আমাকে শাস্তি দেওয়া হোক। সরকার এভাবে কর্মঠ ও বিশ্বাসী পুলিশকর্মীদের ক্যারিয়ার নষ্ট করতে পারে না।

গত মঙ্গলবার রাতে পুলিশি জেরা চলাকালীন অরুণ বাল্মীকি নামে আগ্রার এক দলিতকর্মীর মৃত্যু হয়। তবে জিজ্ঞাসাবাদ চলাকালীন হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি বলে জানায় পুলিশ। তারপরই তার মৃত্যু হয়। মৃত ওই দলিতকর্মীর পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে দেখা করতে যান প্রিয়াঙ্কা।

কিন্তু আগ্রার পুলিশ সদস্যরা মাঝরাস্তায় তাকে আটকে দেন। তবে ঘণ্টা দুয়েক পরে তাকে অনুমতি দেওয়া হয়। শেষ পর্যন্ত তাকে জানানো হয়, তিনি চারজনকে নিয়ে ওখানে যেতে পারেন। কেননা এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি রয়েছে। পরে প্রিয়াঙ্কা নিহতের পরিবারের সঙ্গে দেখা করে তাদের সবরকম সাহায্যের আশ্বাস দেন।

সূত্র: জাগো নিউজ
এম ইউ/২২ অক্টোবর ২০২১

Back to top button