এশিয়া

অবশেষে বিয়ের পিঁড়িতে বসতে যাচ্ছেন জাপানের রাজকুমারী

টোকিও, ০১ অক্টোবর – জাপানের রাজকুমারীর বিয়ে নিয়ে চলা কয়েক বছরের বিতর্কের অবসান ঘটতে যাচ্ছে অবশেষে। বিয়ের পিঁড়িতে বসছেন রাজকুমারী মাকো ও সাধারণ পরিবারে জন্ম নেওয়া তার সহপাঠী কেই কোমুরো। আগামী ২৬ অক্টোবর তারা বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হবেন বলে জানা গেছে।

জাপানের রাজপ্রাসাদের ইম্পেরিয়াল হাউজহোল্ড এজেন্সি তাদের বিয়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

২০১২ সালে জাপানের ইন্টারন্যাশনাল ক্রিশ্চিয়ান ইউনিভার্সিটিতে পরিচয় হয় প্রিন্সেস মাকো ও কেই কোমুরোর। এরপর পরিণয়। ২০১৭ সালে তাদের বাগদানও সম্পন্ন হয়।

প্রিন্সেস মাকো বাগদানের ঘোষণা দেওয়ার এক বছর পর ২০১৮ সালে তাদের বিয়ে করার পরিকল্পনার কথা জানা গিয়েছিল। কিন্তু তৈরি হয় নানা জটিলতা। পিছিয়ে যায় বিয়ের ঘনঘটা। দুই বছর পর অবশেষে তা মেনে নেন জাপানের ক্রাউন প্রিন্স ফুমিহিতো।

বিয়ের পর রাজপ্রসাদ ছেড়ে স্বামী কেই কোমুরোর সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রে পাড়ি জমাবেন প্রিন্সেস মাকো। সেখানে আইনজীবী হিসেবে কাজ করেন কোমুরো।

নিয়ম অনুযায়ী, জাপানি রাজবংশের বাইরে সাধারণ পরিবারের কাউকে বিয়ে করলে রাজপুত্র কিংবা রাজকুমারীকে রাজকীয় পদমর্যাদা হারাতে হয় এবং রাজপ্রাসাদের সবকিছু থেকে বঞ্চিত হন।

সহপাঠীর সঙ্গে প্রেম করলেও বিয়ের সিদ্ধান্ত নেওয়া কঠিন ছিল রাজকুমারী মাকোর জন্য। কিন্তু রাজপ্রসাদের জৌলুস জীবনযাপন ছেড়ে সাধারণ ঘরের ছেলেকেই বিয়ে করতে প্রস্তুত তিনি।

সূত্র : জাগো নিউজ
এন এইচ, ০১ অক্টোবর

Back to top button