উত্তর আমেরিকা

তালেবান ও সমর্থনকারীদের বিরুদ্ধে অবরোধের বিল মার্কিন সিনেটে

ওয়াশিংটন, ৩০ সেপ্টেম্বর – তালেবানের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের প্রস্তাব রেখে মার্কিন সিনেটে খসড়া বিল উপস্থাপন করেছে রিপাবলিকান পার্টির প্রভাবশালী ২২ রাজনীতিক। পাশাপাশি তালেবানকে সাহায্য করার জন্য পাকিস্তানের প্রতি তদন্তের আহ্বান জানানো হয় বলে পাকিস্তানের একটি গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে জানা গেছে।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আফগানিস্তান কাউন্টার টেররিজম, ওভারসাইট অ্যান্ড অ্যাকাউন্টেবিলিটি অ্যাক্ট নামের খসড়া বিলটি কংগ্রেসের উচ্চকক্ষ সিনেটে মঙ্গলবার উপস্থাপন করেন সিনেট ফরেন রিলেশনস কমিটির সদস্য সিনেটর জিম রিচ।

খসড়া বিলে ২০০১ থেকে ২০২০ সাল পর্যন্ত তালেবানকে পাকিস্তান সরকারের আশ্রয় দেওয়ার পাশাপাশি আর্থিক, গোয়েন্দা, লজিস্টিক, চিকিৎসা, প্রশিক্ষণসহ কৌশলগত সহায়তার অভিযোগ মূল্যায়নের আহ্বান জানানো হয়। এমনকি ২০২১ সালের সেপ্টেম্বরে আফগানিস্তানের পাঞ্জশিরের সংঘাতের সময় তালেবানকে পাকিস্তান কোনো ধরনের সাহায্য দিয়েছে কী না তাও খতিয়ে দেখার আহ্বান জানানো হয়েছে ওই খসড়া বিলে।

এছাড়া খসড়া বিলে তালেবানের দ্বিতীয় দফায় ক্ষমতা দখলের পেছনে পাকিস্তান সরকারের হাত রয়েছে কি না তা মূল্যায়নেরও আহ্বান জানানো হয়।
ওই ২২ জন রিপাবলিকান সিনেটরদের মধ্যে ২০১৬ সালের মার্কিন প্রেসিডেন্ট প্রার্থী মিট রমনিও ছিলেন।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ৫৭ পৃষ্ঠার ওই খসড়া বিলে বেশ কয়েকবার পাকিস্তানের প্রসঙ্গ এসেছে।

এদিকে, ওই খসড়া বিলে পাকিস্তান প্রসঙ্গ আসায় তীব্র প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে ইসলামাবাদ। পাকিস্তানের পররাষ্ট্র ও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় পৃথক বিবৃতিতে এর প্রতিবাদ জানায় বলে ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

পাকিস্তানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে যুক্তরাষ্ট্রের এই অভিযোগকে সম্পূর্ণ যৌক্তিক বলে দাবি করেছে।

অন্যদিকে, পাকিস্তানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী শেখ রশিদ তালেবানকে কোনো ধরনের সামরিক সাহায্য দেওয়ার বিষয়টি অস্বীকার করেছে।

তবে খসড়া বিল নিয়ে বাইডেন প্রশাসনের তরফ থেকে কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

সূত্র: যুগান্তর
এম ইউ/৩০ সেপ্টেম্বর ২০২১

Back to top button