ঢালিউড

তোমাকে খুব মিস করছি মা: দীঘি

ঢাকা, ২৫ সেপ্টেম্বর – বাংলাদেশের চলচ্চিত্র জগতে এক সময়ের ‘মিষ্টি মেয়ে’ প্রয়াত চিত্রনায়িকা দোয়েল। আজ (২৫ সেপ্টেম্বর) তার জন্মদিন। মায়ের জন্য সবসময় মন কাঁদে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত অভিনয়শিল্পী প্রার্থনা ফারদিন দীঘির। প্রতিনিয়ত মাকে মিস করেন, মায়ের শূন্যতা অনুভব করেন তিনি। বিশেষ এই দিনে ফেসবুকে মায়ের ছবি শেয়ার করে আবেগঘন স্ট্যাটাস দিয়েছেন দীঘি।

তিনি লিখেছেন, ‘শুভ জন্মদিন মা, আমার ডিভা। তুমি কল্পনাও করতে পারবে না, আমি তোমাকে কতটা মিস করছি। আমি আমার প্রতিটি পদক্ষেপ তোমার সঙ্গে ভাগ করে নিতে চাই। আজ আমি যা আছি, তা শুধু তোমার পরিশ্রম ও প্রার্থনার কারণে। আমি তোমার জন্য জান্নাতের সর্বোচ্চ স্থান প্রার্থনা করছি…আমিন। আমি তোমাকে খুব মিস করছি না।’

দীঘির ভাষ্য, ‘আমার মায়ের জন্মদিন খুব প্রিয় ছিল। তার হোক কিংবা অন্য কারো হোক; বার্থডে পার্টি তার ভালো লাগতো। কাজ না থাকলে কিংবা শুটিং না থাকলে আমরা প্রায়ই পরিবার নিয়ে ঘুরতে বের হতাম। এই জিনিসটা আমার মায়ের খুব প্রিয় ছিল। এসব দিনে এই দিনগুলো খুব মনে পড়ে।’

২০১১ সালে মাকে হারান দীঘি। বলা চলে, আজকের দীঘি হয়ে ওঠার পেছনে সবটুকু অবদান তার মা দোয়েলের। মাকে বলার মতো অনেক কথাই মনের কোণে জমে আছে৷ কিন্তু সেই না বলা কথাগুলো বলতে পারেন না কাউকেই। সে কথাগুলো শুধু মায়ের জন্যই তুলে রেখেছেন তিনি।

মায়ের উদ্দেশ্যে দীঘি বলেন, ‘আজকে আমার যে অবস্থান তা মায়ের জন্য। ছোট দীঘি থেকে বড় দীঘি। আট বছর ক্যামেরার বাইরে থাকার পরও মানুষ মনে রেখেছেন, অভিনয়ে দেখতে চেয়েছেন এটা পুরোটাই মায়ের অবদান। উনি দীঘিকে বানিয়ে রেখেছেন বলে দীঘি এখনও চলতে পারছে। মায়ের সঙ্গে থাকলে পথচলা আরও মসৃণ হতো।’

প্রসঙ্গত, ২০০৬ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত ছয় বছরে ৩৬টি সিনেমায় শিশুশিল্পী হিসেবে অভিনয় করেন দীঘি। মাকে হারনোর পর নিয়েছেন দীর্ঘ বিরতি। সেই বিরতি কাটিয়ে নায়িকা হয়ে ফিরেছেন তিনি। ইতোমধ্যে তার দুটি সিনেমা মুক্তি পেয়েছে। হাতে রয়েছে কয়েকটি সিনেমা।

এন এইচ, ২৫ সেপ্টেম্বর

Back to top button