ক্রিকেট

ইংল্যান্ডের বিপর্যয়ের সময়ের নায়ক পোপ-ওকস

লন্ডন, ০৪ আগস্ট – চতুর্থ টেস্টে প্রথম দিনে বোলাররা দাপট দেখিয়েছেন। দ্বিতীয় দিনের প্রথম সেশনেও ছিল বোলারদের দাপট। সেই দাপটে ৬২ রানেই ৫ উইকেট হারিয়ে ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়েছিল ইংলিশরা। কিন্তু অলি পোপ ও ক্রিস ওকসের ব্যাটে সেটা সামাল দেয় স্বাগতিকরা। শেষ পর্যন্ত সবকটি উইকেট হারিয়ে ২৯০ রান তোলে ইংল্যান্ড। আর লিড নেয় ৯৯ রানের।

জবাবে ভারত তাদের দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে কোনো উইকেট না হারিয়ে ৪৩ রান তুলে দ্বিতীয় দিন শেষ করেছে। ইংল্যান্ডের চেয়ে তারা পিছিয়ে আছে ৫৬ রানে। ক্রিজে আছেন রোহিত শর্মা (২০) ও লোকেশ রাহুল (২২)। তারা দুজন আজ শনিবার বিকেলে আবার ব্যাট করতে নামবেন।

তার আগে ৩ উইকেট হারিয়ে ৫৩ রান তুলে প্রথম দিন শেষ করা ইংল্যান্ড দ্বিতীয় দিনে আবার ব্যাট করতে নামে। আগের দিনের অপরাজিত ব্যাটসম্যান ক্রেইগ ওভারটন দলীয় ৫৩ রানের মাথায় আউট হন। মাত্র ১টি রান করেন তিনি। ৬২ রানের মাথায় প্রথম দিনের অপর অপরাজিত ব্যাটসম্যান দাওয়িদ মালান আউট হলে বিপর্যয়ে পড়ে ইংল্যান্ড। মালান ৩১ রান করে যান।

এরপর দলের হাল ধরেন পোপ ও জনি বেয়ারস্টো। প্রথম তিন টেস্টে খেলতে না পারা পোপ ষষ্ঠ উইকেটে বেয়ারস্টোর সঙ্গে ৮৯ তোলেন, সপ্তম উইকেটে মঈন আলীর সঙ্গে তোলেন ৭১ রান। ১৫১ রানের মাথায় বেয়ারস্টো ৩৭ রান করে আউট হন। আর ২২২ রানের মাথায় মঈন আউট হন ৩৫ রান করে। ২৫০ রানের মাথায় আউট হন পোপ। ১৫৯ বল খেলে ৬ চারে সর্বোচ্চ ৮১ রান করে যান।

এরপর ওকস শেষ উইকেটে জেমস অ্যান্ডারসনকে সঙ্গে নিয়ে ৪৫ রানের জুটি গড়েন। তিনি ৬০ বলে ১১ চারে ৫০ রান করে রান আউট কাটা পড়েন। আর ইংল্যান্ড ২৯০ রানে অলআউট হয়।

বল হাতে ভারতের উমেশ যাদব ৩টি উইকেট নেন। ২টি করে উইকেট নেন জাসপ্রিত বুমরাহ ও রবীন্দ্র জাদেজা। আর ১টি করে উইকেট নেন শার্দুল ঠাকুর ও মোহাম্মদ সিরাজ।

ইংল্যান্ড-ভারতের মধ্যকার পাঁচ ম্যাচ টেস্ট সিরিজে বর্তমানে ১-১ এ সমতা বিরাজ করছে।

সূত্র : রাইজিংবিডি
এন এইচ, ০৪ আগস্ট

Back to top button