Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 5.0/5 (1 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৯-১০-২০১৬

ঘুম কাড়ছে কলকাতার আন্ডার ওয়ার্ল্ড

ঘুম কাড়ছে কলকাতার আন্ডার ওয়ার্ল্ড

কককাতা, ১০ সেপ্টেম্বর- ভর সন্ধেয় শুটআউট। বিমান বন্দর দিয়ে সোনাপাচার। শহরতলিতে বিশাল অস্ত্র কারখানার হদিশ। শহরের শিরায়-উপশিরায় ছড়িয়ে পড়ছে ক্রাইম সিন্ডিকেট। কলকাতা কি মুম্বাই হয়ে উঠছে?

মেরিন ড্রাইভ। কখনও না ঘুমনো মায়ানগরী। আর গ্যাংস্টার। স্বাধীনতার আগে থেকেই মুম্বইয়ের সঙ্গে বড় হয়েছে তার সংগঠিত অপরাধ জগত। সমান্তরাল শাসনযন্ত্র। পুলিস ফাইল বলে, অর্গানাইজড ক্রাইম।

হাজি মস্তান, করিম লালা, বরদারাজন মুরলিধর, ছোটা রাজন, অরুণ গাউলি এবং অবশ্যই দাউদ ইব্রাহিম। আরব সাগর দিয়ে স্মাগলিং। কখনও সোনা, কখনও ড্রাগস। কখনও অস্ত্র। এবং অবশ্যই এক্সটরশন।

মুম্বাই এবার কলকাতাতেও? মহেশতলায় উদ্ধার সারি সারি অত্যাধুনিক অস্ত্র। ক্রেতা কে? দমদম বিমানবন্দরে প্রতিদিন উদ্ধার অবৈধ সোনা। কার নেক্সাস? ভরসন্ধেয় কড়েয়ার গলিতে শুটআউট। গোয়েন্দারা বলছেন, কলকাতার শিরায় উপশিরায় ডালপালা মেলছে অর্গানাইজড ক্রাইম, ধীরে ধীরে, অত্যন্ত সুশৃঙ্খলভাবে।

ড্রাগস, সোনা পাচার, অস্ত্র ও মানব পাচার হয়। কিন্তু, মহানগরের আন্ডার ওয়ার্ল্ডে আসল ব্যবসা সিন্ডিকেট। নির্মাণে কাটমানি, ব্যবসায়ীদের কাছে প্রোটেকশন মানি, রাউডি ট্যাক্স, বন্দরে মাল নামানোয় সেলামি। কালো টাকা এখানেই। মায়ানগরীর মতো মহানগরে সুসংগঠিত অপরাধতন্ত্র নেই। শহরের কোনায় কোনায় স্বাধীনভাবে করে কম্মে খাচ্ছে একাধিক দুষ্কৃতী।

বাবলু ঘোষ ওরফে বান্টি: হরিদেবপুর পানশালায় গুলি চালানোয় অভিযুক্ত। বাঁশদ্রোণীর রেনিয়ার সিন্ডিকেট পাণ্ডা।
কালা: নান্টির শাগরেদ। হরিদেবপুর কাণ্ডে অভিযুক্ত। তোলাবাজি, খুনের চেষ্টা, বেআইনি অস্ত্র মজুতে অভিযুক্ত।
তারক হালদার: কসবায় সিপিএম নেতা গুরুপদ বাগচি খুনে অভিযুক্ত। কুখ্যাত তোলাবাজ।
শিউকুমার রজক: শেখ বিনোদের পুরনো শাগরেদ। লেক গার্ডেন্সের ক্রাইম সিন্ডিকেটের পাণ্ডা।
মলয় দত্ত: ব্রহ্মপুর, রেনিয়া এলাকায় সিন্ডিকেট কিং।
ব্যসদেব: লেক এলাকায় সিন্ডিকেট পাণ্ডা। নান্টি ও তারক ঘনিষ্ঠ।
এর বাইরেও রয়ে গেছে ছোট বড় একাধিক গ্যাংস্টার।

কসবা ও গড়ফা এলাকায় মুন্না পাণ্ডে, গিলেমেটে, সোনাপাপ্পু, বিশ্বনাথ মণ্ডল, ত্রিলোকী সিং, যাদবপুরে তারক দাস, বিনোদ পাটোয়ারি, বেহালার ঠাকুরপুকুরে তারক ছেত্রী ও চিংড়ি উত্তর কলকাতায় আনোয়ার ও স্বপন চক্রবর্তী, দক্ষিণ কলকাতায় শেখ বিনোদ, পার্ক স্ট্রিটের দুই আখতার ভাই, এবং আলিপুরের স্ট্রংম্যান প্রতাপ সাহা।

শহরজুড়ে গ্যাংস্টার। নিয়ম করে শুটআউট। গ্যাংওয়ার। কলকাতা মনে করাচ্ছে মুম্বাইকে। একটাই বাঁচোয়া। কলকাতা পুলিস বলছে, কলকাতার অপরাধজগত এখনও মুম্বইয়ের মতো সমান্তরাল ইন্ডাস্ট্রি নয়। তাকে এখনও লাগাম পরানোর সুযোগ রয়েছে।

আর/১৭:১৪/১০ সেপ্টেম্বর 

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে