Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 3.0/5 (5 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৮-২৩-২০১৬

টমেটো কেচাপের পেছনের সত্যটি জানুন

সাবেরা খাতুন


টমেটো কেচাপের পেছনের সত্যটি জানুন

বার্গার, স্যান্ডউইচ বা ফ্রেঞ্চ ফ্রাই যেটাই হোক না কেন টমেটো কেচাপ ছাড়া খাওয়ার কথা চিন্তাই করতে পারেনা বর্তমানের কিশোর-তরুণরা। কিন্তু এই টমেটো সস বা কেচাপে কি টমেটোর সব ভালো গুণগুলো থাকে? এর উত্তর হচ্ছে না ! টমেটো সসের বোতলের লেবেলটি যদি আপনি পরেন তাহলে দেখবে এতে যে উপাদানগুলো থাকে তা হচ্ছে – টমেটো, লবণ, চিনি, প্রিজারভেটিভ, মসলা, পেঁয়াজ, রসুন এবং কালারিং এজেন্ট। অর্থাৎ ১ চামচ টমেটো কেচাপে টমেটোর, লবণ ও চিনি ছাড়াও আরো অনেক জিনিস থাকে যা ডায়াবেটিস ও উচ্চরক্তচাপের মত অসুখগুলোর জন্য খারাপ। আসুন জেনে নিই টমেটো কেচাপের ভালো, খারাপ ও জঘন্য দিকগুলোর বিষয়ে।

টমেটো কেচাপের ভালো দিক :
-   কেচাপ তৈরি হয় টমেটো দিয়ে এবং টমেটো শরীরের জন্য খুবই উপকারী।

-   খাবারের সাথে কেচাপ দিলে বেশিরভাগ শিশুরা মজা করে খায়।

-   এর স্বাদ ভালো এবং

-   এটি খুব সহজেই পাওয়া যায় বোতল বা প্যাকেটে।

টমেটো কেচাপের খারাপ দিক :
ঘন টমেটো – সস বানানোর জন্য টমেটোকে জ্বাল দেয়া হয়, তারপর ছেঁকে বীজ ও খোসা পৃথক করা হয়। তারপর আবারো অনেক বেশি উচ্চতাপে রান্না করা হয়। যার ফলে টমেটোর অনেক ভিটামিন ও মিনারেল নষ্ট হয়ে যায়।

হাই ফ্রুক্টোজ কর্ণ সিরাপ – এতে শুধু চিনিই থাকেনা উচ্চমাত্রার ফ্রুক্টোজ ও থাকে যা শরীরের জন্য খারাপ। ফ্রুক্টোজ মস্তিষ্ককে এই বার্তা পাঠায় যে আমরা ক্ষুধার্ত। ফলে আমরা অনেক বেশি HFCS খাই এবং আরো বেশি খাওয়ার ইচ্ছা জাগে। এর ফলে টাইপ ২ ডায়াবেটিস ও স্থূলতা বৃদ্ধি পায়।

লবণ- এতে বেশি পরিমাণে লবণ থাকে যা স্বাস্থ্যের জন্য খারাপ।

টমেটো কেচাপের জঘন্য দিক :
-   GMO   হচ্ছে   Genetically Modified Organism  যা আমাদের এড়িয়ে চলা উচিৎ। অস্ট্রেলিয়া, জাপান ও ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন এর সকল দেশ সহ বিশ্বের ৫০ টি দেশে GMO কে নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

-   কিছু প্রস্তুতকারক টমেটোর পরিবর্তে সাদা তরমুজ ও পেঁপে ব্যবহার করে, কারণ এগুলো টমেটোর চেয়ে সস্তা।

-   কেচাপ প্রস্তুত ও বোতলজাত করার প্রক্রিয়াটি অনেক ক্ষেত্রেই স্বাস্থ্যসম্মত না।

-   এতে যে কালারিং এজেন্ট ব্যবহার করা হয় তা অ্যালার্জির সমস্যা সৃষ্টি করতে পারে।

-   কেচাপের প্রধান উপাদান হাই ফ্রুক্টোজ কর্ণ সিরাপ যা অস্বাস্থ্যকর মিষ্টিকারক এবং প্রক্রিয়াজাত উপাদান। মনে রাখবেন ১ টেবিলচামচ টমেটো কেচাপে আনুমানিক ৩০ ক্যালরি থাকে।

-   টমেটোর সবচেয়ে ভালো দিক হচ্ছে এতে ক্যারোটিন (ভিটামিন এ), ভিটামিন  সি এবং ফাইবার থাকা। কিন্তু কেচাপ তৈরির প্রক্রিয়ায় উচ্চ মাত্রার তাপ প্রয়োগ করা হয় বলে ভিটামিনের উপর প্রভাব পড়ে। এছাড়া ছাঁকন প্রক্রিয়ার সময় ফাইবার দূর হয়ে যায়। তাই টমেটো কেচাপে অবশিষ্ট থাকে কেবল ক্যালরি ও প্রিজারভেটিভ।

-   তাই যারা স্থূলতার সমস্যায় ভুগছেন তারা সহ অ্যালার্জি ও অ্যাজমা আছে এমন মানুষদের এবং উচ্চ রক্তচাপ ও ডায়াবেটিসের রোগীদের কেচাপ খাওয়া সম্পূর্ণ এড়িয়ে যাওয়া উচিৎ।

প্রয়োজনীয় টিপস :
শুধুমাত্র পার্টি বা কোন অনুষ্ঠানের সময় কেচাপ ব্যবহার করুন। ঘরে তৈরি ধনে পাতার চাটনি, খেজুরের চাটনি খুবই স্বাস্থ্যকর যা প্রতিদিনই খেতে পারেন। চাইলে ঘরে তৈরি করে নিতে পারেন টমেটো কেচাপ।

লিখেছেন- সাবেরা খাতুন

এফ/০৮:৩৫/২৩আগষ্ট

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে