Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print

আপডেট : ০৮-১৪-২০১৬

১১তম শিক্ষাবোর্ড হচ্ছে ময়মনসিংহে

নূর মোহাম্মদ


১১তম শিক্ষাবোর্ড হচ্ছে ময়মনসিংহে

ময়মনসিংহ, ১৪ অগাস্ট- সদ্য ঘোষিত ময়মনসিংহ বিভাগে দেশের ১১তম শিক্ষাবোর্ড স্থাপনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। এব্যাপারে প্রাথমিক যাচাই-বাচাইয়ের জন্য সাত সদস্যের একটি কমিটি করা হয়েছে। সরেজমিন জরিপ চালিয়ে তাদের আগামী ১৫ কার্যদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে।

রোববার শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে এক জরুরি সভায় এসব সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। সভা সূত্রে জানা গেছে, গত বছরের ১৪ই সেপ্টেম্বর ময়মনসিংহকে বিভাগে রূপান্তর করা হয়। এরপর থেকে সেখানে শিক্ষাবোর্ড স্থাপনের দাবি ক্রমেই জোরালো হয়। দেশের অন্তত চারটি শিক্ষাবোর্ডের চেয়ে বৃহত্তর ময়মনসিংহে শিক্ষার্থী বেশি থাকায় বোর্ড স্থাপন যৌক্তিক বলে মনে করেন এই অঞ্চলের মানুষ। পরে সরকারি সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ময়মনসিংহে একটি নতুন শিক্ষাবোর্ড স্থাপনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। ইতোমধ্যে প্রাথমিক প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে।

এ লক্ষ্যে  শিক্ষামন্ত্রণালয়ে শিক্ষা সচিব সোহরাব হোসাইনের সভাপত্বিতে এক জরুরি সভা করা হয়। সভায় ময়মনসিংহে নতুন শিক্ষাবোর্ড করার যৌক্তিকতা তুলে ধরার পর প্রাথমিক যাচাই-বাচায়ের জন্য শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (বিদ্যালয়) চৌধুরী মুফাত আহমেদকে আহ্বায়ক করে ৭ সদস্যের একটি কমিটি গঠিত হয়। এ কমিটিতে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব রুহি রহমান, ঢাকা বোর্ড চেয়ারম্যান অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের বিদ্যালয় শাখার পরিচালক এলিয়াস হোসেনসহ বিভাগীয় কমিশনার ও ময়মনসিংহের আঞ্চলিক কর্মকর্তাকে রাখা হয়েছে।

সভা প্রসঙ্গে আন্তঃশিক্ষাবোর্ডের সমন্বয়ক ও ঢাকা বোর্ড চেয়ারম্যান অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান বলেন, ঢাকা বোর্ডের সীমানা অনেক বৃহত্তর হওয়ায় অনেককে দূর-দূরান্ত থেকে আসতে হচ্ছে। সংশ্লিষ্টদের সকল সুবিধা সহজভাবে দেয়া সম্ভব হয় না। বিভিন্ন সময় নানা ভোগান্তিতেও পড়তে হচ্ছে তাদের। তাই ময়মনসিংহে শিক্ষাবোর্ড হলে সে অঞ্চলের মানুষের ভোগান্তি কমে যাবে। সহজেই তারা বোর্ড সুবিধা পাবেন। তিনি বলেন, মাঠ পর্যায়ে প্রাথমিক যাচাই-বাচাইয়ের জন্য কমিটি করা হয়েছে। আগামী ১৫ কার্যদিবসের মধ্যে কমিটিকে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে। এ প্রতিবেদনের ভিত্তিতে উচ্চ পর্যায়ে যাচাই-বাছায়ের পর চূড়ান্ত করা হবে।

পরিসংখ্যানে দেখা গেছে, চলতি বছর অনুষ্ঠিত এসএসসি পরীক্ষায় চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডে পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল এক লাখ, বরিশাল বোর্ডে ৭১ হাজার, সিলেট বোর্ডে ৭৪ হাজার এবং যশোর বোর্ডে এক লাখ ৩১ হাজার। এর বিপরীতে বৃহত্তর ময়মনসিংহে এ সংখ্যা এক লাখ ৩২ হাজার ৫০০। এ ছাড়া গত বছরের জেএসসি পরীক্ষায় ওই ৪টি শিক্ষাবোর্ডের চেয়ে বেশি পরীক্ষার্থী ছিল এই অঞ্চলে। শিক্ষার্থী ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের আধিক্যের কারণে জোরালো হয়ে ওঠে ময়মনসিংহে শিক্ষাবোর্ড স্থাপনের দাবি।

ময়মনসিংহ বিভাগ বাংলাদেশের অষ্টম প্রশাসনিক বিভাগ। জামালপুর, শেরপুর, ময়মনসিংহ ও নেত্রকোনা জেলা নিয়ে ময়মনসিংহ বিভাগ গঠিত। ১৮২৯ সালে ঢাকা বিভাগ প্রতিষ্ঠার সময় থেকে ২০১৫ সালের ১৩ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত এই বৃহত্তর ময়মনসিংহ অঞ্চল ঢাকা বিভাগের অংশ ছিল। ২০১৫ সালের ১২ জানুয়ারি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মন্ত্রিসভার এক বৈঠকে ঢাকা বিভাগ ভেঙে নতুন ময়মনসিংহ বিভাগ গঠনের ঘোষণা দেন। দেশে বর্তমানে আটটি সাধারণ শিক্ষাবোর্ডের পাশাপাশি একটি কারিগরি ও একটি মাদ্রাসা শিক্ষাবোর্ড রয়েছে।

ময়মনসিংহ শিক্ষাবোর্ড স্থাপিত হলে এটি দেশের নবম সাধারণ শিক্ষাবোর্ড হবে। সবমিলিয়ে দেশে শিক্ষাবোর্ডর সংখ্যা হবে ১১টি।

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে