Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 1.0/5 (2 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৮-০৮-২০১৬

মৌসুমী অসুখের নেতিবাচক প্রভাব থেকে দূরে থাকুন

সাদিয়া ইসলাম বৃষ্টি


মৌসুমী অসুখের নেতিবাচক প্রভাব থেকে দূরে থাকুন

মৌসুম বদলাচ্ছে। একটু একটু করে অনেক বেশি গরম থেকে অল্প অল্প ঠান্ডার দিকে যাচ্ছে আবহাওয়া। রাতে ঘুমোতে যাওয়ার সময় প্রচন্ড গরম, অথচ ভোরে শীতে গাঁ কেপে ওঠে- এমনটা ইদানিং হচ্ছে প্রায়ই। আর এর ফলাফল হিসেবে দেখা দিচ্ছে মানুষের শরীরে ঠান্ডা, সর্দি, জ্বরসহ মৌসুমী সব অসুখ। যেগুলোর কারণে না বেরোনো যাচ্ছে বাইরে, না শান্তি পাওয়া যাচ্ছে ঘরে। কিন্তু এমনটা হলে কীভাবে হবে? এই দিনের পর দিন ঘরের ভেতরে প্রচন্ড ব্যথাযুক্ত পাথরের মতন ভারী একটা মাথা আর সারা শরীরে ব্যথা নিয়ে কতদিনইবা মানসিকভাবে সুস্থ থাকতে পারে একজন মানুষ? ধীরে ধীরে নিজের অক্ষমতা, অকার্যকরিতা মনের ভেতরে নানারকম নেতিবাচক চিন্তা আর হতাশা এনে দেয় মানুষকে। তাই চলুন আজ জেনে আসি এই বিরক্তিকর মৌসুমী অসুখের সময়ে কী করে নিজেকে মানসিকভাবে সুস্থ রাখবেন, কী করে নিজের মনোযোগকে অন্যদিকে ঘোরাবেন।

১. গলার ভেতরে চুলকাচ্ছে? কান চুলকান
অনেক সময় ঠান্ডা লাগলে মাঝে মাঝেই আমাদের গলার ভেতরে কেমন যেন অল্প অল্প চুলকায়। যতই ঢোক গেলা হোক, পানি পান করা হোক কিংবা আরকিছু- সামান্য আরাম হলেও সাথে সাথেই আবার ফিরে আসে এই গলার চুলকানি। আরো অনেকের মতন আপনার সাথেও নিশ্চয় এমনটা হয়েছে এর আগে কিংবা এখন? তাহলে আপনাকে বলে দিচ্ছি এই চুলকানিভাব কমানোর মোক্ষম একটা উপায়। আর সেটি হচ্ছে নিজের কানকে চুলকানো। কান চুলকালে সেটি গলার মাংসপেশীকেও প্রভাবিত করে। ফলে বন্ধ হয়ে যায় গলার চুলকানি।

২. মাইগ্রেনকে ভুলে থাকুন
প্রায়ই মাইগ্রেনের ব্যথা ওঠে আপনার? বিশেষ করে মৌসুম বদলের এই সময়টাতে? তাহলে দেরী না এক্ষুণি নিজের বুড়ো আঙ্গুল ও তর্জনীকে ব্যবহার করুন। ঘাড়, হাত ও পায়ের নির্দিষ্ট কিছু অংশে চাপ প্রয়োগ করে মাইগ্রেনের ব্যথা একদম দূর করে ফেলুন। ঘড়ের ক্ষেত্রে ঘাড়ের পেছন দিকটায়, হাতের ক্ষেত্রে বুড়ো আঙ্গুলোর পাশে ও পায়ের ক্ষেত্রে দুই আঙ্গুলোর মাঝখানের ফাঁকা স্থানটিতে চাপ দিন। দরকার হলে দেখে নিন এই ইউটিউব ভিডিওটি।

৩. আঙ্গুল মুখে পুরে ফুঁ দিন
পাগলামী মনে হচ্ছে না একটু? কিন্তু এই পাগলামীটাই আপনার স্নায়ুকে সতেজ করে তুলতে সাহায্য করবে। মৌসুমী অসুখের কারণে দিনের পর দিন শুয়ে-বসে থাকার ফলে নিজের ভেতরে হওয়া মানসিক সমস্যাগুলোকে দূর করতে সাহায্য করবে। এই পদ্ধতিতে আপনার শ্বাস-প্রশ্বাস ঠিকঠাক কাজ করে। ফলে ভেতরের উদ্বিগ্নতা ও উত্তেজনা দূর হয়ে যায়। এক্ষেত্রে চাপ কমানোর জন্যে মুখে পানির ছিটেও দিতে পারেন আপনি।

৪. দাঁতের শিরশিরানি দূর করুন
ঠান্ডা থেকে মাঝে মঝে দাঁতের ভেতরে শিরশিরানি বা যন্ত্রণা হয়ে থাকে। এই সমস্যা থেকে দূরে থাকতে একটি বরফের টুকরো হাতে নিন আর সেটাকে হাতের উল্টো পিঠে ঘষতে থাকুন। বিশেষ করে বুড়ো আঙ্গুল ও তর্জনীর আঙ্গুলের মাঝখানটাতে। এই স্থানটির সাথে মুখ ও দাঁতের মাংসপেশীর সংযোগ রয়েছে। তাই এই কৌশলটির মাধ্যমে খুব সহজেই সমস্যাগুলোকে দূর করতে পারবেন আপনি।

লিখেছেন- সাদিয়া ইসলাম বৃষ্টি

এফ/০৯:৩০/০৮আগষ্ট

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে