Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 3.0/5 (47 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৭-৩১-২০১৬

আসামের বন্যায় নোয়াখালীর ছবি!

আসামের বন্যায় নোয়াখালীর ছবি!

দিসপুর, ৩১ জুলাই- ভারতের আসাম রাজ্যে বন্যা পরিস্থিতি মারাত্মক রূপ নিয়েছে। বিষয়টি সরেজমিনে প্রত্যক্ষ করতেই শনিবার রাজ্যের বন্যা উপদ্রুত এলাকাগুলোতে সফরে গিয়েছিলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং। সফর শেষে মন্ত্রীর হাতে বন্যার ওপর প্রকাশিত কিছু প্রতিবেদন ও নয়টি ছবি তুলে দেন আসামের মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সোনোওয়াল। ওই ছবিগুলোর একটি ছিল বাংলাদেশের বন্যার ওপর। আর এটি নিয়েই গোটা দেশ জুড়ে শুরু হয়েছে তোলপাড়। যদিও রাজ্য সরকার ভুল স্বীকার করে ক্ষমাও চেয়ে নিয়েছেন। কিন্তু এতেই বিতর্ক থামছে না। ইতোমধ্যে ভারতের কিছু প্রধান প্রধান সংবাদ মাধ্যমে খবরটি ফলাও করে প্রকাশ পেয়েছে।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথের হাতে বাংলাদেশের যে ছবিটি দেয়া হয়েছিল সেটি আসলে এবারের বন্যার নয়। এটি দু বছর আগেকার ছবি। ২০১৪ সালে এটি তুলেছিলেন ওয়াইল্ডলাইফ ফটোগ্রাফার হাসিবুল ওয়াহাব। ওই সময়  তিনি বন্যা পরিস্থিতি স্বচোখে দেখার জন্য উপকূলীয় এলাকাগুলোতে সফর করেছিলেন। সে সময় তিনি নোয়াখালী সফরের সময় এই বিখ্যাত ছবিটি তোলেন। সেই বছরের ফেব্রুয়ারিতে এটি প্রকাশ করেছিল কার্টার নিউজ এজেন্সি। তখনই ছবিটি খুব আলোচনায় এসেছিল। কেননা এটি বন্যার কোনো সাধারণ ছবি নয়। একটি মানবিক ছবি যেখানে মানুষ আর পশুর ভালোবাসা সমান্তরাল অবস্থান নিয়েছে।

ছবিতে দেখা যায় এক তরুণ একটি হরিণ শাবককে বন্যার জল থেকে উদ্ধার করে নিয়ে যাচ্ছে। শিশু হরিনটিকে বাঁচাতে তার সে কি প্রচেষ্টা। এক হাতে সে পশুটিকে উঁচু করে ধরে রেখেছে। অন্য হাতটি দিয়ে বানের জল ঠেলে ডাঙ্গায় উঠার চেষ্টা করছে। বানের পানিতে তার চোখ পর্যন্ত ডুবে গেছে। তারপরও সে পশুটিকে ছাড়েনি। নিজের জীবনের মায়া তুচ্ছ করে হরিনটিকে বাঁচিয়েছে সে। ছবির এই তরুণটির নাম বেলাল। বয়স বিশের কোঠায়। 

এদিকে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর হাতে ভুল ছবি তুলে দেয়া নিয়ে বিব্রত আসাম সরকার নানাভাবে বিষয়টি সামল দেয়ার চেষ্টা করছে। নাম প্রকাশ না করার শর্তে আসাম সরকারের এক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে বলেছেন, ‘এটা একটি ভুল। বন্যায় কাজিরাঙা ন্যাশনাল পার্কের যে পরিস্থিতি হয়েছে এর সঙ্গে ছবিটির বেশ মিল থাকায় এমন ভুল হয়েছে।’ আর এক কর্মকর্তা বলছেন, বন্যা উপদ্রুত কাজিরাঙার আশপাশের লোকজন সাঁতরে কিছু পশুপাখিদের উদ্ধার করেছে। ফলে এরকম ভুল হয়েছে।

তবে এ নিয়ে মন্ত্রী রাজনাথ কি প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছেন তা অবশ্য জানা যায়নি। তিনি আসামের বন্যা পরিস্থিতিকে ‘ভয়াবহ ও চ্যালেঞ্জিং’ বলে উল্লেখ করেছেন।উল্লেখ্য, বন্যায় আসামে ২৬ জন প্রাণ হারিয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে রাজ্যের ৩৭ লাখ মানুষ। সূত্র: এনডিটিভি

এফ/১৬:১৫/৩১জুলাই

আসাম

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে