Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৬-১৪-২০১৬

গেইলকে ভয় পেয়েছিলেন লারা!

গেইলকে ভয় পেয়েছিলেন লারা!

গ্র্যান্ড টার্ক, ১৪ জুন- ক্রিস গেইল মানেই ঝড়ো ব্যাটিং, ব্যাটের তাণ্ডবে প্রতিপক্ষের বোলারদের উড়ে যাওয়া। তবে কোনো বোলার নন, একবার গেইলকে নিয়ে ভীষণ ভয় পেয়েছিলেন ব্রায়ান লারা। তাও আবার প্রতিপক্ষ হিসেবে নয়, একই দলের সতীর্থ হয়ে! সদ্য প্রকাশিত আত্মজীবনীতে গেইল নিজেই জানিয়েছেন ঘটনাটা।

২০০৪ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে লারার অপরাজিত ৪০০ রান আজো টেস্ট ক্রিকেটের ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ইনিংস। তবে পরের বছর এই রেকর্ড ভেঙে দেওয়ার সম্ভাবনা জাগিয়েছিলেন গেইল। ২০০৫ সালে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে অ্যান্টিগা টেস্টে ত্রিশতক করলেও ৪০০ পর্যন্ত যেতে পারেননি তিনি, আউট হয়ে যান ৩১৭ রান করে।

তবে গেইল আউট না হওয়া পর্যন্ত লারা নাকি সুস্থির হয়ে বসতে পারছিলেন না। ‘সিক্স মেশিন : আই ডোন্ট লাইক ক্রিকেট—আই লাভ ইট’ নামের আত্মজীবনীতে এ প্রসঙ্গে গেইল লিখেছেন, ‘কিছু কিছু খেলোয়াড় রেকর্ড নিয়ে ভীষণ সচেতন থাকেন। ওই ম্যাচে ব্রায়ান চার রান করে আউট হওয়ার পর ড্রেসিংরুমে বসে বই পড়ছিলেন। মাঝেমধ্যে অবশ্য ব্যালকনিতে এসে স্কোরবোর্ড দেখছিলেন। (রামনরেশ) সারওয়ান অবাক হয়ে লক্ষ করছিলেন তাঁকে। প্রতিবার ব্রায়ান বাইরে এসে যখন দেখছিলেন যে আমার রান তাঁর রেকর্ডের কাছাকাছি চলে যাচ্ছে, তাঁকে ভীষণ উদ্বিগ্ন মনে হচ্ছিল।’

সেদিন নাকি গেইলের সঙ্গে কোনো কথাই বলেননি লারা। আত্মজীবনীতে গেইল লিখেছেন, “আমি মধ্যাহ্ন-বিরতি বা চা-বিরতিতে ফিরে আসলেও তিনি আমার সঙ্গে কোনো কথা বলেননি। ‘চালিয়ে যাও’ বা ‘দলের জন্য খেল’ জাতীয় কোনো উপদেশও দেননি।”

গেইল অবশ্য লারাকে ‘হতাশ’ করেননি, আউট হয়ে গিয়েছিলেন ত্রিশতকের কিছু পরই। ২০১০ সালে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে গল টেস্টে আবার লারার রেকর্ড ভাঙার হাতছানি ছিল তাঁর সামনে। কিন্তু সেবার ক্যারিবীয় ওপেনার থেমে যান ৩৩৩ রান করে।

আর/১২:০৪/১৪ জুন

ক্রিকেট

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে