Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৬-১০-২০১৬

নতুন রূপে ওয়ারফেইজ

নতুন রূপে ওয়ারফেইজ

ঢাকা, ১০ জুন- তরুণদের কাছে সবচেয়ে জনপ্রিয় ব্যান্ডগুলোর একটি ‘ওয়ারফেজ’। হার্ড রক-হেভি মেটাল ঘরনার গান দিয়ে জয় করেছেন শ্রোতাদের মন। দলটি যাত্রা শুরু করে ১৯৮৪ সালে। তখনকার লাইনআপ ছিলো- কমল (বেস), হেলাল (ড্রামস), বাপ্পী (ভোকাল) এবং মীর ও নাইমুল (গিটার)। শুরু থেকেই ঝড়ঝঞ্চাটের উপর দিয়েই যাচ্ছে দলটি। একের পর এক রদবদল ঘটেছে লাইনআপে। কেউ দলটি ছেড়ে পাড়ি দিয়েছেন দেশের বাইরে, কেউবা ভিড়েছে অন্য দলে। শুরুর দিকেই প্রথম লাইনআপে হেলাল, মীর ও বাপ্পী ব্যান্ডটি ছেড়ে দেন। পরে কমল বেস ছেড়ে গিটার বাজানো শুরু করেন। বেস বাজানোর দায়িত্ব নেন বাবনা করিম। আর ড্রামসে বসেন টিপু। আর বাপ্পীর পরিবর্তে ভোকালিস্ট হিসেবে যোগ দেন রাশেদ। তখন থেকেই টিপু ওয়ারফেজের সদস্য। ব্যান্ডটির আর সব জায়গায় রদবদল ঘটলেও, ড্রামসে টিপু এক ও অদ্বিতীয়। আর এখন তো তিনি কেবল ব্যান্ডটির ড্রামারই নন, দলনেতাও। ভাঙা-গড়ার দল নিয়েই ১৯৯১ সালে প্রকাশিত হয় তাদের প্রথম অ্যালবাম- ওয়ারফেইজ। ১৯৯৩-৯৪ সালে মুক্তি পায় ওয়ারফেইজের দ্বিতীয় অ্যালবাম অবাক ভালোবাসা। দ্বিতীয় এলবাম মুক্তির পরপরই রাসেল আলী ব্যান্ড ছেড়ে দেন। পাড়ি জমান আমেরিকায়। সেখানেও তিনি সঙ্গীতকেই পেশা হিসেবে বেছে নেন। 

চতুর্থ অ্যালবাম বের হওয়ার পর সবচেয়ে বড় সমস্যার মুখোমুখি হয় দলটি। ব্যক্তিগত কারণে তাদের মূল ভোকাল সঞ্জয়কে ব্যান্ড ছাড়তে হয়। প্রায় ২ বছর খোঁজাখুঁজির পর, ২০০০ সালে ওয়ারফেইজ সঞ্জয়ের বদলি খুঁজে পায়- মিজান। এরই মধ্যে পুরো ব্যান্ডে আরেক দফা রদবদল ঘটে। পুরনো সদস্যদের মধ্যে থেকে যান কেবল কমল আর টিপু। মিজানের সঙ্গে নতুন করে যোগ দেন বালাম (গিটার ও ভোকাল), শামস (কিবোর্ড) এবং বিজু (বেস)। পরের ঝামেলার শুরু হয় মিজানকে নিয়ে। মাঝে নারী ও শিশু নির্যাতন মামলায় গ্রেপ্তার করা হয়েছিল মিজানকে। তারপরই গানে অনিয়মিত হন তিনি। আদর্শগত ও দর্শনগত বিষয়ে মতপার্থক্যের জেরে ওয়ারফেজ থেকে বাদ দেয়া হয় মিজানকে। মিজানকে বাদ দেয়ার পরপরই নতুন ভোকাল খুঁজতে থাকে দলটি। অবশেষে খোঁজ মিলেছে কাঙ্খিত ভোকালিস্ট। পলাশ নূর লীড ভোকালিস্ট হিসেবে যোগ দিয়েছেন ওয়ারফেজে। ২০০৭ সালে রেডিও অ্যাক্টিভ ব্যান্ড নিয়ে ডি রকস্টার প্রতিযোগিতার মাধ্যমে আত্মপ্রকাশ করেছিলেন পলাশ। ওই প্রতিযোগিতায় সেরা ব্যান্ড হয় পাওয়ারসার্জ, কিন্তু সেরা ভোকালিস্ট হয়েছিলেন পলাশ। এরপর ব্যান্ড ও সলো ক্যারিয়ারে ব্যস্ত হয়ে পড়েন তিনি। রেডিও অ্যাকটিভ ছেড়ে পলাশ অ্যান্ড ফ্রেন্ডস (পিএনএফ) গড়েন। আবার ফিরে যান রেডিও অ্যাক্টিভে। শেষমেষ যোগ দিলেন জনপ্রিয় ব্যান্ড ওয়ারফেইজে। 

ওয়ারফেইজ ব্যান্ডের বর্তমান লাইন আপ: 
শামস (কিবোর্ড), পলাশ নূর (লিড ভোকাল), ইব্রাহিম আহমেদ কমল (লিড গিটার), নাইম হক রজার (বেজ গিটার), সামির হাফিজ (গিটার) ও শেখ মনিরুল আলম টিপু (ড্রামস)।

আর/১০:৩৪/১০ জুন

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে