Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 1.3/5 (3 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print

আপডেট : ০৬-০৮-২০১৬

ঐতিহ্যের ইফতার মানেই চকবাজার

ঐতিহ্যের ইফতার মানেই চকবাজার

ঢাকা, ০৮ জুন- মুসলিম উম্মার শ্রেষ্ঠ মাস রমজান। ‍সিয়াম সাধনার মাস এটি। বিশ্ব মুসল্লিদের কাছে সংযমেরও মাস এটি। সারাদিন রোজা রাখার পর সন্ধ্যায় ইফতার নিয়ে থাকে বিশেষ আয়োজন। আর সেই আয়োজনের পসরা একদিকে যেমন ঘরোয়া পরিবেশে বিকেল থেকেই প্রস্তুত হতে থাকে অন্যদিকে বাইরের হোটেল-রেস্তোরাঁগুলোতেও বিভিন্ন আইটেমের ইফতার সাজিয়ে রাখা হয়। শুধু স্বাদেই নয়, এগুলো যেন চোখেও মুগ্ধতা ছড়ায়।  

রাজধানীর পুরান ঢাকায় বরাবরের মতোই এবারও রমজানের প্রথম দিনের চোখে পড়লো ইফতারের নানা আয়োজনের চিত্র। চকবাজার এলাকায় একবার না ঘুরে গেলে বাস্তব দৃশ্যটা বুঝা যায় না। 

মঙ্গলবার (০৭ জুন) সকাল থেকে চকবাজার মুঘল আমলের শাহী মসজিদের সামনের পুরো রাস্তা দখল করে নিয়েছে এলাকায় সিজনাল ব্যবসায়ীরা। তারা প্রতি রমজান মাসে এ সড়ক বন্ধ করে ইফতার সামগ্রী বিক্রি করে থাকে।

জানা গেছে, ঐতিহ্যবাহী চকবাজার এলাকায় ইফতারি নিতে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে লোকজন আসে। তবে এই ইফতার বাজারের বেশির ভাগ ক্রেতা আশে পাশে এলাকার বাসিন্দারাই। এই বাজার থেকে ইফতার না নিলে যেন কেমন অপূর্ণতা থেকে যায় তাদের মধ্যে। 

স্থানীয় বাসিন্ধা হাজী ইসমাইল হোসেন জানান, ঢাকার ঐতিহ্যবাহী ইফতারির জমজমাট বাজার বসে চকবাজারের শাহি মসজিদের সামনের সড়কে। শাহ বা রাজাদের আমল থেকেই শুরু হয়েছে এই ইফতারির বাজার। দেশের দূর-দূরান্ত থেকে অনেকেই এই বাজারে ইফতার নিতে আসে। এবারও নতুন সাজে সেজেছে ইফতারির বাজার। এই বাজারের ইফতারের কদর দিন দিন বাড়ছে বলে জানান তিনি। 

অস্থায়ী ব্যবসায়ী জানে আলম বলেন, ‘আমার বাপ-দাদারা এই বাজারে ইফতারি বিক্রি করেছে। সেই সুবাদে আমি এখন বাজারে ২০ বছর ধরে ইফতারি সামগ্রী বিক্রি করি। সারা দেশে ‌আমাদের চকবাজারের ইফতারির সুনাম আছে। তাই মানুষ এ বাজার থেকে ইফতারি নিতে আসে।’

তিনি বলেন, ‘আমরা একমাস ব্যবসা করি। যা আমাদের সারা বছর চলে। তবে রমজান মাসে অনেক সময় ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে দুই একজন ব্যবসায়ীকে জরিমানা করা হয়। এতে সবার বদনাম হয়।’ 

ইফতার কিনতে আসা কয়েকজন ক্রেতার সঙ্গে আলাপকালে তারা জানান, আসলে বাসায় তৈরি করার চেয়ে চকবাজার থেকে ইফতার কিনে নিতেই স্বাচ্ছন্দবোধ করেন তারা। এটা একটা ঐতিহ্যে পরিণত হয়ে গেছে। ইফতার কেনার জন্য প্রত্যেকের আলাদা বাজেটই থাকে। তাছাড়া প্ল্যান পরিকল্পনাও থাকে কবে কোন আইটেম দিয়ে ইফতার করা হবে। 

ইফতার কিনতে এসেছেন নাজিরা বাজারের এমরান হোসেন। তিনি বলেন, ‘আসলে এখানকার শাহী জিলাপির জন্য এসেছি। ইফতার আইটেমে শাহী জিলাপী হলে তার মজাটাই আলাদা। 

বিভিন্ন ইফতার সামগ্রীর আইটেমের মধ্যে ঐতিহ্যবাহী ‘বড় বাপের পোলায় খায়’, পেঁয়াজু, শাহি জিলাপি, সুতি কাবাব, জালি কাবাব, টিকিয়া, মুরগি, খাসির রোস্ট আরো বাহারি নামের ও স্বাদের কাবাব উল্লেখযোগ্য। এছাড়াও রয়েছে বেগুনি, আলুর চপ, ডিমের চপ, ছোলা ও ঘুগনি।

দুপুরের পর থেকে বাজারে বেচাকেনা শুরু হয়ে গেছে। চলবে ইফতারের পর পর্যন্ত। চকবাজারে এবার ছোট বড় মিলিয়ে প্রায় ২৫০ থেকে ৩০০টি দোকান ইফতার সামগ্রী বিক্রি করছে।

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে