Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৬-০১-২০১৬

রাগসূত্রের সংগীতসন্ধ্যা

অজন্তা চৌধুরী


রাগসূত্রের সংগীতসন্ধ্যা

টরন্টো, ০১ জুন- টরন্টোর ডন বসকো অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত হলো বহু প্রত্যাশিত সংগীতায়োজন সাউন্ড অব সাইলেন্স। ২৮ মে শনিবার এই সংগীতসন্ধ্যা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে সংগীত পরিবেশন করেন শিল্পী আশিকুজ্জামান টুলু, টিনা কিবরিয়া ও মুর্তজা শোয়েব। আর অতিথি শিল্পী হিসেবে ছিলেন শাহজাহান কামাল। তিনি মুর্তজা শোয়েবের সঙ্গে ছিলেন।

এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে সুরকার ও ব্যান্ড লিজেন্ড আশিকুজ্জামান টুলুর প্রচেষ্টায় গড়া রাগসূত্র। প্রতিষ্ঠানটি একটি ইউটিউব চ্যানেল ও ফেসবুক পেজ। যেখানে নতুন ও পুরোনো শিল্পীদের গান কম্পোজ করে মিউজিক ভিডিওর মাধ্যমে শ্রোতাদের মাঝে উপস্থাপন করা হয়। এরই ধারাবাহিকতায় তারা এবার সাউন্ড অব সাইলেন্স সংগীতসন্ধ্যা উপস্থাপন করে। অনুষ্ঠানের একটি ব্যতিক্রমী দিক ছিল গান নির্বাচন। দর্শক-শ্রোতার মন ভরে উপভোগ করেন বিভিন্ন আমেজ, ভিন্ন সময়কাল ও ভিন্ন স্বাদের এক অনবদ্য সুর-তাল-লয়ের ছন্দ।

আকাশ যে ঢাকা, আমি যে জলসা ঘরে, তোমার চন্দনা মরে গেছে গানগুলোর পাশাপাশি লাগ যা গলে, নিকলো না বেনেকাব, তুজসে নারাজ নেহি জিন্দেগিসহ বিভিন্ন দশকের হিন্দি চলচ্চিত্রের গান ও গজলও স্থান পায়।

হলভর্তি দর্শক-শ্রোতার করতালির মাঝে সংগীতশিল্পী টিনা কিবরিয়ার জীবনটা কিছু নয় শুধু এক মুঠো ধুলো গানটির মাধ্যমে সংগীতসন্ধ্যার শুরু হয়। বিরতির ঠিক আগে রবীন্দ্রসংগীত শিল্পী শাহজাহান কামালের ভরাট কণ্ঠে রবীন্দ্রসংগীত তুমি রবে নীরবে সংগীতপ্রেমী শ্রোতাদের মনে অন্যরকম ভালো লাগার পরশ বুলিয়ে দেয়।

বিরতির পরে আশিকুজ্জামান টুলু মঞ্চ আলোকিত করে গেয়ে ওঠেন ব্যান্ড চাইমের তার সেই আলোড়ন সৃষ্টি করা গান, সেদিনও আকাশে ছিল চাঁদ। গানটির সঙ্গে দর্শক-শ্রোতাও কণ্ঠ মিলাতে শুরু করলে জমে ওঠে দ্বিতীয় পর্ব। টিনা কিবরিয়ার সুরেলা মিষ্টি কণ্ঠে একের পর এক গানে গানে সময় যখন দ্রুত গতিতে চলে যাচ্ছিল ঠিক তখনই আবার গজল শিল্পী শোয়েব মুর্তজার কিছুটা ক্ল্যাসিক্যাল ধাঁচের গানগুলো সময়টাকে বেঁধে ফেলার চেষ্টা করছে সুরের জাদুতে। কিন্তু ঘড়ির কাঁটা তো চলতেই থাকে। অদ্ভুত এক সুরেলা মূর্ছনায় দর্শক-শ্রোতা উপভোগ করেন এক অন্যান্য সুরময় সন্ধ্যা।
অনুষ্ঠানে আরও একটি ভিন্ন উপস্থাপনায় ছিল সঞ্চালক ইমামুল হক কিসলু ও দিলারা নাহার বাবুর উপস্থিতি। তাদের সাবলীল কথোপকথন ও দর্শকদের সঙ্গে গান নিয়ে কিছু খেলা ছিল ব্যতিক্রমী উদ্যোগ। অনুষ্ঠানে শিল্পীদের যারা শিল্পীদের যন্ত্রের মাধ্যমে সহযোগিতা করেন তারা হলেন; তবলা ও পারকাশানে রনি পালমার, তবল ও ঢোলে রাজিব, রিদম গিটারে আসিফ, ড্রামে সৌরভ, ব্যাসে বেলাল এবং কিবোর্ড ও অ্যাকুস্টিক গিটারে আশিকুজ্জামান টুলু।

গ্রীষ্মের শুরুতেই এমন একটি ভিন্ন ধারার সংগীতসন্ধ্যা সংগীত পিপাসু শ্রোতাদের হৃদয়ে এক শীতলতার আবহ সৃষ্টি করে। ব্যান্ড লিজেন্ড আশিকুজ্জামান টুলুর উদ্যোগে রাগসূত্র এগিয়ে যাক নিজ গতিতে আর শ্রোতাদের মাঝে ফিরে ফিরে আসুক ভিন্ন আয়োজন, এমনই প্রত্যাশা টরন্টোর সংগীতপ্রেমী শ্রোতাদের।

ছবি: ইত্তেজার সৌজন্যে

কানাডা

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে