Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৫-৩১-২০১৬

টয়লেট অপরিচ্ছন্ন থাকলে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা: শিক্ষামন্ত্রী

টয়লেট অপরিচ্ছন্ন থাকলে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা: শিক্ষামন্ত্রী

ঢাকা, ৩১ মে- টয়লেট পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন না থাকা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানসমূহের পরিচালনা কমিটি ও প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। 

মঙ্গলবার রাজধানীর গুলশানের স্পেক্ট্রা কনভেনশন সেন্টারে জাতীয় পর্যায়ের শিশু সংগঠন চাইল্ড পার্লামেন্টের ১৩তম অধিবেশনে ‘দেশের মাধ্যমিক বিদ্যালয়সমূহে পানি ও পয়ঃনিষ্কাশন ব্যবস্থার উন্নয়নে সরকারি বাজেট বৃদ্ধি’ শীর্ষক দ্বিতীয় সেশনে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ কথা বলেন। যৌথভাবে এ চাইল্ড পার্লামেন্টের আয়োজন করে বাংলাদেশ শিশু একাডেমি, বেসরকারি আন্তর্জাতিক সংস্থা সেভ দ্য চিলড্রেন, বাংলাদেশ এবং প্ল্যান ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ভালো মানের শিক্ষার জন্য সুষ্ঠু পরিবেশ খুব জরুরি। পরিচ্ছন্ন টয়লেট ও নিরাপদ পানির ব্যবস্থা সুষ্ঠু পরিবেশের প্রধান উপাদান। যে সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমন পরিবেশ নিশ্চিত করতে পারবে না, ওই সকল বিদ্যালয় পরিদর্শন করে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

চাইল্ড পার্লামেন্টের কিশোরী সদস্যদের বয়ঃসন্ধিকালের নানা সমস্যার কথা শুনে শিক্ষামন্ত্রী নাহিদ বলেন, কিশোরী শিক্ষার্থীদের জন্য এ সময় পরিচ্ছন্ন টয়লেট অত্যন্ত জরুরী। এ বিষয়টি স্কুল কমিটিকে দেখার জন্য তিনি নির্দেশ দেন।

স্কুল কমিটি ও শিক্ষকদের বয়ঃসন্ধিকালীন কিশোরীদের প্রতি যত্নশীল হওয়ার তাগিদ দিয়ে তিনি বলেন, প্রতিটি স্কুলের একজন করে শিক্ষককে সরকার এ বিষয়ে বিশেষ ট্রেনিং দেয়ার কথা ভাবছে। ভবিষ্যতে সরকার প্রতি স্কুলে একজন করে মনোবিজ্ঞানী নিয়োগ দেয়ার কথাও ভাবছে।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, নতুন প্রজন্মের মধ্যে গণতান্ত্রিক মূল্যবোধ ও তাদের নেতৃত্বের গুণাবলী বিকাশের জন্য প্রতিটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শিক্ষার্থীদের প্রত্যক্ষ ভোটে স্টুডেন্টস কেবিনেট গঠন করা হয়েছে। ক্যাবিনেটের কাজ হচ্ছে শিক্ষকদের সাহায্য করা এবং বিদ্যালয়ের পরিবেশ সুষ্ঠু ও সুন্দর রাখা।

মন্ত্রী বলেন, দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের স্টুডেন্ট কেবিনেটকে শিক্ষা ও সহশিক্ষা কার্যক্রমের পাশাপাশি পরিবেশ সংরক্ষণ, পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা, পয়ঃনিষ্কাশন, নিরাপত্তা জোরদার ও মাদক নির্মূল কার্যক্রমে গুরুত্বর্পূণ ভূমিকা পালন করতে হবে। যে সকল প্রতিষ্ঠানের ক্যাবিনেট এসব কাজ করতে পারবে না তাদের নেতৃত্বে থাকার কোন দরকার নেই।  

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, পাহাড়ী ও উপকূলীয় এলাকার প্রতিটি বিদ্যালয়ের সঙ্গে একটি করে হোস্টেল নির্মাণের চিন্তা-ভাবনা সরকারের রয়েছে। প্রত্যন্ত এলাকার এসব শিক্ষার্থীরা যেন বিরূপ পরিবেশে হোস্টেলে অবস্থান করে পড়ালেখার সুযোগ পায়।

চাইল্ড পার্লামেন্টের দ্বিতীয় অধিবেশনে বিশেষ অতিথি ছিলেন নূরজাহান বেগম মুক্তা এমপি। স্পিকার ও ডেপুটি স্পিকারের দায়িত্ব পালন করেন চাইল্ড পার্লামেন্টের সদস্য হাসান মাহমুদ ও মেফতাহুন নাহার।

শিক্ষা

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে