Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 5.0/5 (2 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৫-২৬-২০১৬

‘বয়কট’ এড়িয়ে শপথমঞ্চে কংগ্রেস-বিজেপি শীর্ষ নেতৃত্ব!

‘বয়কট’ এড়িয়ে শপথমঞ্চে কংগ্রেস-বিজেপি শীর্ষ নেতৃত্ব!

কলকাতা, ২৬ মে- মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে বাম-কংগ্রেস-বিজেপি শীর্ষ নেতৃত্বের উপস্থিতি ধোঁয়াশা এখনও কাটল না৷ শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে হাজিরা হওয়া নিয়ে জাতীয় কংগ্রেস এখনও কোনও সিদ্ধান্ত না নিলেও কেন্দ্রীয় বিজেপির পক্ষ থেকে অনুষ্ঠানে হাজির থাকতে পারেন অরুণ জেটলি৷ এর আগেও গত বছেরের শেষের দিকে রাজ্য সরকারের উদ্যোগে অনুষ্ঠিত বিশ্ববঙ্গ শিল্প সম্মেলনে অংশ নিয়েছিলেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি৷ এবারের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানেও জেটলির হাজির হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে৷

আগামী কাল, শুক্রবার প্রদেশ কংগ্রেসের পরিষদীয় দলের নেতা নির্বাচনের জন্য জাতীয় কংগ্রেসের পর্যবেক্ষক সিপি জোশি, অম্বিকা সোনি শহরে আসতে পারেন৷ মনে করা হচ্ছে, হাইকমান্ডের সবুজ সঙ্কেত আসলেই বৈঠক শেষে মমতার সভায় হাজির হতে পারেন কংগ্রেস এই দুই শীর্ষ নেতা৷ এর আগেও প্রদেশ কংগ্রেস নেতৃত্ব ও বামফ্রন্ট নতুন সরকারের শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে হাজির হবে না বলে জানিয়ে দিয়েছ৷ বিজেপি শুক্রবার ‘কালা দিবস’ পালন করে বলে আগেই ঘোষণা করেছে৷ ফলে, মমতার শপথ অনুষ্ঠানে রাজ্যের বিরোধী শিবিরের উপস্থি না থাকলেও দিল্লির নেতাদের উপস্থিতি নিয়ে শুরু হয়েছে জল্পনা৷

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের শপথ অনুষ্ঠানে জন্য প্রধানমন্ত্রী ছাড়াও আমন্ত্রণ জানানো হচ্ছে রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়, বিগ বি, শাহরুখ খান, নীতীশ কুমার, অরবিন্দ কেজরিওয়াল, মুলায়ম সিং ‌যাদব, পিয়ূষ গোয়েল, সোনিয়া গান্ধী, রাহুল গান্ধী, অখিলেশ যাদব, জয়ললিতা, লালু প্রসাদ যাদব, নীতীশ কুমারকে৷ এমনকি বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী সেখ হাসিনাক ও ভুটানের প্রধানমন্ত্রী সেরিং টোগবে। এছাড়াও শিল্পপতি হর্ষ নেওটিয়া, সঞ্জীব গোয়েঙ্কা, সঞ্জয় বুধিয়া, পূর্ণেন্দু চট্টোপাধ্যায়, সুপ্রিয়া দেবী, উষা উত্থুপ, মানবী মুখোপাধ্যায়েও আমন্ত্রণ করা হয়েছে৷ জানা গিয়েছে, রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী শপথে আসতে পারবেনা৷ আসবে না সোনিয়া গান্ধী, রাহুল গান্ধীও৷ তবে, প্রতিনিধি দল পাঠাতে পারে কংগ্রেস৷ বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীও আসছেন না৷ তবে, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের জন্য ২০ কেজি ইলিশ পাঠাচ্ছে বাংলাদেশ সরকার৷ মমতার শপথ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে পাহাড় থেকে গোর্খা জনমুক্তি মোর্চার সভাপতি তথা জিটিএ প্রধান বিমল গুরুঙ্গ।

শুক্রবারের মন্ত্রিসভার শপথ অনুষ্ঠানে জন্য পুরোদমে চলছে প্রস্তুতি। শপথ চলাকালীন বেলা ১টা থেকে বিকেল ৪টে পর্যন্ত চলতে পারে শপথ অনুষ্ঠান৷ অনুষ্ঠান নিয়ে থাকছে কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকছে৷

এফ/২২:১৭/২৬মে

পশ্চিমবঙ্গ

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে