Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৫-২৬-২০১৬

সিসি ক্যামেরায় কোন হার্ডডিস্ক ব্যবহার করছেন? (ভিডিও সংযুক্ত)

আলাউদ্দিন আলিফ


সিসি ক্যামেরায় কোন হার্ডডিস্ক ব্যবহার করছেন? (ভিডিও সংযুক্ত)

নিরাপত্তার জন্য ক্লোস সার্কিট ক্যামেরা (সিসি) বা গোপন ক্যামেরা বেশ জনপ্রিয়। নিজে উপস্থিত না থেকেও যে কোন ঘটনা প্রত্যক্ষ করার জন্য এই ডিভাইসের জুড়ি নেই। সিসি ক্যামেরাগুলো থেকে এখন ইমেজ সরাসরি মোবাইলেও দেখা যায়। ওয়্যারলেস নেটওয়ার্কের মাধ্যমে বিদেশে বসেও চোখ রাখা যায় নিজের বাড়ি, ব্যবসায় প্রতিষ্ঠান অথবা কোন গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনায়।

সিসি ক্যামেরা ইমেজগুলো ধারণ করে একটি হার্ডডিস্কে সংরক্ষণ করে। সাধারণত, এইচডি মানের ক্যামেরাগুলোতে সারাদিনের দৃশ্য ধারণ করতে ৮ জিবির মতো মেমোরির প্রয়োজন হয়। ক্যামেরার ফুটেজ গুলো সংরক্ষণ করতে ধারণকৃত ভিডিওগুলো হার্ডডিস্কে জমা রাখা হয়। কিন্তু সাধারণ হার্ডডিস্ক কি তথ্য সংরক্ষণের জন্য যথেষ্ট?

কম্পিউটারের সাধারণ হার্ডডিস্কে সারাদিন কার্যক্ষম থাকে না। ২ থেকে ১০ ঘন্টা ব্যবহারের পর এই হার্ডডিস্কগুলো বিরতি দেয়। তারপর কিছু সময় পর আবার কার্যকর হয়ে ওঠে। এই হার্ডডিস্কগুলোর দিনব্যাপী রাইট স্পিড থাকে ১ জিবি পর্যন্ত এবং রিড স্পিড ২ জিবি পর্যন্ত।

প্রত্যেকটি হার্ডডিস্কে এরর টাইম থাকে। এরর টাইম হলো সেই সময়টা যে সময়টাতে হার্ডডিস্ক কার্যকর থাকার সময়ও বিরতি নেয়। যেমন, কোন একটি ভিডিও ধারণ করা হচ্ছে। ভিডিও ধারণ করার সময় যখন এরর টাইম আসবে তখন হার্ডডিস্ক ক্যামেরার ধারণ করা ফুটেজ সংরক্ষণ করতে পারে না। ডেস্কটপে ব্যবহৃত হার্ডডিস্কগুলোর এরর টাইম ৩০ সেকেন্ড পর্যন্ত হয়ে থাকে।

এখন যদি কোন গুরুত্বপূর্ণ ঘটনা এই ৩০ সেকেন্ডের মধ্যে সংঘঠিত হয়, তাহলে হার্ডডিস্কে সে ঘটনার কোন স্মৃতি পাওয়া যাবে না। আবার এই হার্ডডিস্কগুলো ২৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস থেকে ৪৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত তাপমাত্রা সহ্য করতে পারে। এর ওপরে গেলে হার্ডডিস্ক কাজ করতে অক্ষম হয়ে যায়। তাহলে সমাধান কি? 

বিশ্ব বিখ্যাত হার্ডডিস্ক নির্মাতা প্রতিষ্ঠান ওয়েস্টার্ন ডিজিটাল (ডব্লিউডি) নতুন একটি হার্ডডিস্ক বাজারে এনেছে যে হার্ডডিস্কটি বেগুনী রঙের। ডব্লিউডি রঙের মাধ্যমে হার্ডডিস্কগুলোর বিভাজন করেছেন। নীল, কালো, লাল, বেগুনী এবং সোনালী রঙে ইন্টার্নাল হার্ডডিস্কগুলো পাওয়া যায়। এর মধ্যে নীল রঙের ইন্টার্নাল হার্ডডিস্কগুলো সাধারণ ডেস্কটপে ব্যবহারের জন্য। গোপন ক্যামেরাগুলোতে যেহেতু প্রতিটি সেকেন্ড গুরুত্বপূর্ণ সেহেতু বেগুনী রঙের হার্ডডিস্কগুলো এক্ষেত্রে সর্বোচ্চ কর্মদক্ষতা প্রদর্শন করে। 

বেগুনী রঙের হার্ডডিস্কগুলোকে ওয়েস্টার্ন ডিজিটাল সার্ভিল্যান্স পার্পেল হার্ডড্রাইভ বলে। এতে একসাথে ৩২টি এইচডি ক্যামেরার ফুটেজ সংরক্ষণ করা যায়। এটি ২৪ ঘন্ট/৭দিন অ্যাকটিভ থাকে। প্রতিদিন এই হার্ডডিস্কগুলোর রাইটিং স্পিড ১০০জিবি এবং রিড স্পিড ১৫ জিবি ।

সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য দিক হলো এই হার্ডডিস্কগুলোর এরর টাইম ২৫০ মিলি সেকেন্ড থেকে ১ সেকেন্ড পর্যন্ত। যার ফলে এতে কোন ফুটেজ বাদ পড়ার কোন সম্ভাবনা থাকে না। তারপরের গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার হলো তাপমাত্রা। অন্য হার্ডডিস্কগুলো যেখানে কার্যকর থাকা অবস্থায় ৪৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় কাজ করতে অক্ষম হয়ে যায়, সেখানে এই হার্ডডিস্কগুলো ৭০ ডিগ্রি তাপমাত্রায়ও কার্যকর থাকতে পারে। 

ওয়েস্টার্ন ডিজিটাল পার্পল রঙের হার্ডডিস্কগুলোতে ৩ বছর পর্যন্ত রিপলেসমেন্ট ওয়ারেন্টি দিচ্ছে। আর সাধারণ হার্ডডিস্কগুলোর ক্ষেত্রে এই ওয়ারেন্টি ২ বছর পর্যন্ত প্রযোজ্য। তাই গোপন ক্যামেরায় ব্যবহারের জন্য হার্ডডিস্ক কিনুন বুঝে শোনে।

বাংলাদেশে এই হার্ডডিস্কগুলোর পরিবেশক স্মার্ট টেকনোলজি লিমিটেড। ৪টেরাবাইটের (টিবি) হার্ডডিস্কের মূল্য ১৩ হাজার ৫০০ টাকা।

ভিডিও

এফ/০৭:৪৪/২৬মে

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে