Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print

আপডেট : ০৫-২২-২০১৬

দপ্তরিদের দাবি যৌক্তিক, ‘এখনই পূরণ’ গ্রহণযোগ্য নয়

দপ্তরিদের দাবি যৌক্তিক, ‘এখনই পূরণ’ গ্রহণযোগ্য নয়

ঢাকা, ২২ মে- সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতে অস্থায়ীভাবে দপ্তরি-কাম-প্রহরী পদে নিয়োগকৃতদের চাকুরি স্থায়ীকরণের দাবি যৌক্তিক উল্লেখ করে শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু বলেছেন, ‘এ দাবি বাস্তবায়নে সরকারের সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে আলোচনা করব। তবে এখনই দাবি পূরণ করতে হবে- এ ধরনের আচরণ গ্রহণযোগ্য নয়। এ পদে কর্মরতদের প্রাতিষ্ঠানিক শৃঙ্খলা বজায় রাখার প্রতি আরো যত্নশীল হতে হবে।’

রোববার (২২ মে) রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইন্সটিটিউট মিলনায়তনে বাংলাদেশ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কর্মচারী কল্যাণ সমিতি আয়োজিত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে শিল্পমন্ত্রী এসব কথা বলেন। 

তিনি বলেন, ‘প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দপ্তরি-কাম-প্রহরী পদ স্থায়ীকরণের দাবি যৌক্তিক। এ দাবি বাস্তবায়নের জন্য সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে আলোচনা করা হবে। তবে এখনই এটি পূরণ করতে হবে- এ ধরনের আচরণ গ্রহণযোগ্য নয়।’ এ দাবি নিয়ে কোনো ধরনের অস্থিরতা কিংবা অপ্রত্যাশিত কার্যক্রম যাতে না ঘটে সে বিষয়ে সতর্ক থাকতে তিনি সংশ্লিষ্টদের প্রতি পরামর্শ দেন।

এ সময় শিল্পমন্ত্রী বলেন, ‘কারো দাবির প্রেক্ষিতে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দপ্তরি-কাম-প্রহরী পদে নিয়োগ দেয়া হয়নি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা স্বপ্রণোদিত হয়ে ৩৭ হাজার প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এ পদ সৃষ্টি করেছেন।’ তিনি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কর্মরত এসব কর্মচারীদের কাম্য আচরণ বজায় রাখার পরামর্শ দেন। এসব পদ জাতীয়করণ করলে, তা প্রধানমন্ত্রীর বদান্যতা হবে বলে উল্লেখ করেন তিনি।

আমির হোসেন আমু বলেন, ‘প্রাথমিক শিক্ষার গুণগত মানোন্নয়নে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান স্বাধীনতার পরপর ৪০ হাজার প্রাথমিক বিদ্যালয় জাতীয়করণ করেছিলেন। তাঁরই নীতির আলোকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গত মেয়াদে ৩৭ হাজার প্রাথমিক বিদ্যালয় জাতীয়করণ করেছেন। অন্য কোনো সরকার এ ধরনের কোনো উদ্যোগ নেয়নি।’

প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশের অর্থনীতি দ্রুত এগিয়ে যাচ্ছে। ১৬ কোটি জনসংখ্যার বাংলাদেশে এখন একজন লোকও না খেয়ে নেই। বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্ম হয়েছে বলেই সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতে দপ্তরি-কাম-প্রহরী পদ সৃষ্টি হয়েছে। ইতোমধ্যে এ পদে কর্মরতদের বেতন ৭ হাজার টাকা বাড়িয়ে ১১ হাজার টাকা করা হয়েছে।’ 

বাংলাদেশ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কর্মচারী কল্যাণ সমিতির সভাপতি সাধন কান্ত বাড়ই এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান। এ সময় অন্যদের মধ্যে সাংসদ অ্যাডভোকেট তালুকদার মো. ইউনুস, অ্যাডভোকেট মো. নূরুল ইসলাম সুজন, নজরুল ইসলাম বাবু এবং সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক মো. নাসির উদ্দিন মোল্লা বক্তব্য রাখেন।

অনুষ্ঠানে সংগঠনের পক্ষ থেকে দেশের সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতে সৃষ্ট ৩৭ হাজার দপ্তরি-কাম-প্রহরী পদ জাতীয়করণের দাবি জানানো হয়। এ পদে কর্মরত কিছু কর্মচারী নিয়মিত বেতন পাচ্ছে না বলে অভিযোগ তুলে ধরা হয়। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনার আলোকে আউট সোর্সিংয়ের মাধ্যমে নিয়োগকৃত দপ্তরি-কাম-প্রহরী পদ স্থায়ী করলে প্রাথমিক শিক্ষার গুণগত মানোন্নয়নে ইতিবাচক প্রভাব পড়বে বলে তারা উল্লেখ করেন।

আর/১৬:১৪/২১ মে

জাতীয়

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে