Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print

আপডেট : ০৪-০৮-২০১৬

তনুর ঘটনা থেকে দৃষ্টি ফেরাতেই নাজিম হত্যা

তনুর ঘটনা থেকে দৃষ্টি ফেরাতেই নাজিম হত্যা

ঢাকা, ০৭ এপ্রিল- সোহাগী জানান তনু হত্যা ও রিজার্ভের টাকা চুরির ঘটনা থেকে দৃষ্টি অন্যদিকে ফেরাতেই নাজিমুদ্দিন সামাদকে হত্যা করা হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন গণজাগরণ মঞ্চের মুখপাত্র ডা. ইমরান এইচ সরকার।

তিনি বলেছেন, তনু হত্যার বিচারের দাবিতে মানুষ যখন সোচ্চার, তখন মানুষের দৃষ্টি অন্যদিকে সরিয়ে দেয়ার জন্য একটি পক্ষ সুপরিকল্পিতভাবে এ হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে।’

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী নাজিমুদ্দিন সামাদ হত্যার প্রতিবাদে শাহবাগে আয়োজিত মশাল মিছিলপূর্ব সমাবেশে এমন মন্তব্য করেন ইমরান সরকার।

সরকারের উপর ক্ষোভ প্রকাশ করে তিনি বলেন, ‘একের পর এক হত্যাকাণ্ডের দায় আনসারুল্লাহ বাংলা টিম, রহিম উদ্দিন-করিম উদ্দিনের নামে দিয়ে যাবেন, আর আমরা আপনাদের পড়ানো স্ক্রিপ্ট গলাধকরণ করব, তা আর হবে না। যারাই এই হত্যাকাণ্ডের পেছনে থাকুক না কেন বিচার করতে হবে।’

কোনো উগ্রবাদী গোষ্ঠী এই হত্যাকাণ্ডের পেছনে জড়িত আছে বলে মনে করলে দ্রুত তাদের ধরে তা প্রমাণ করারও আহ্বান জানান তিনি।

তিনি বলেন, একটার পর একটা ঘটনা ঘটছে আর আপনার কোনো ক্লু খুজে পাচ্ছেন না। আপনারা এটা খেলা পেয়েছেন? একটার পর একটা ঘটনা ঘটবে আর আপনারা নানা ধরনের গান হাজির করবেন, সংবাদ সম্মেলন করবেন। একদিন বলবেন আনসারুল্লাহ বাংলা, আরেক দিন বলবেন জেএমবি, আরেক দিন বলবেন এদের কেউ না, অন্য কোনো গোষ্ঠী। এসব বলে জনগণের দৃষ্টি আরেক দিকে সরিয়ে দেবেন। সেটা হবে না।

ইমরান জোর দিয়ে বলেন, ‘নাজিমুদ্দিন সামাদের হত্যাকাণ্ডের পর পরিষ্কারভাবে মনে হচ্ছে, এসব হত্যাকাণ্ড কোনো বিচ্ছিন্ন ঘটনা নয়, এগুলো পরিকল্পিত হত্যাকাণ্ড। এসব হত্যাকাণ্ডের পেছনে এমন কোনো শক্তি আছে, যে শক্তি থাকার কারণে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী চোখে কালো চশমা পরে আছে। তারা কিছুই দেখছে না।’

তিনি বলেন, ‘একজন প্রতিবাদী তরুণকে হত্যা করার পর বলা হয়- যারা হত্যা করেছে তারা নাকি ‘আল্লাহু আকবার’ স্লোগান দিয়ে চলে গেছে। এই কথাটি বলে একটি সুনির্দিষ্ট গোষ্ঠীর দিকে তাক করা হয়। এই তাক করার ফলে বিচার পাওয়ার যে সম্ভাবনা, তা নষ্ট হয়ে যায়।’

সমাবেশের পর একের পর এক হত্যাকাণ্ড ধামাচাপা দেয়ার প্রতিবাদে আগামীকাল শুক্রবার বিকেল ৪টায় শাহবাগে সংহতি সমাবেশের কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়। পরে সন্ধ্যা ৬টায় ঘটনার প্রতিবাদে একটি মশাল মিছিল বের হয়। মিছিলটি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি ঘুরে পুনরায় শাহবাগে এসে শেষ হয়।

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে