Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৪-০৪-২০১৬

যুক্তরাজ্যে দাস হিসেবে বিক্রি হচ্ছে নেপালি শিশুরা

যুক্তরাজ্যে দাস হিসেবে বিক্রি হচ্ছে নেপালি শিশুরা

কাঠমান্ডু, ০৪ এপ্রিল- নেপালে ভয়াবহ ভূমিকম্প থেকে বেঁচে যাওয়া দরিদ্র শিশুদের যুক্তরাজ্যে দাস হিসেবে বিক্রি করা হচ্ছে বলে যে খবর বেরিয়েছে তা তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী তেরেসা মে। সম্প্রতি এক ব্রিটিশ পত্রিকায় এ সংক্রান্ত প্রতিবেদন প্রকাশিত হওয়ার পর তিনি এই নির্দেশ দিলেন বলে সোমবার দ্য গার্ডিয়ান পত্রিকাটি জানিয়েছে।

ব্রিটেনের মত সভ্য দেশে দাস হিসেবে শিশুদের বিক্রির এই ঘটনা উদঘটিত হওয়ার পর নড়েচড়ে বসেছে প্রশাসন।

সম্প্রতি স্থানীয় ‘দ্য সান’ পত্রিকায় প্রকাশিত এক অনুসন্ধানী প্রতিবেদনে বলা হয়েছিল, নেপালে ভয়াবহ ভূমিকম্পের পর সেখানকার নিঃস্ব ছেলেমেয়েদের গৃহস্থালী কাজের জন্য যুক্তরাজ্যে পাচার করা হচ্ছে। ১০ বছর বয়সী এক একটি শিশুকে কালোবাজারে ৫৩০০ পাউন্ডে (বাংলাদেশি মুদ্রায় ৫৯০৭৪১.৩৮ টাকা) বিক্রি করা হচ্ছে। ভারতের পাঞ্জাব প্রদেশের একটি দুষ্ট চক্র ওই পাচার কাজে জড়িত রয়েছে বলে ওই পত্রিকাটিতে দাবি করা হয়েছে। ওই চক্রটি উদ্বাস্তু নেপালি শিশু এবং পরিত্যক্ত ভারতীয় শিশুদের ব্রিটিনে পাচার করছে। তবে এ পর্যন্ত তারা কতজন শিশুকে দেশটিতে পাচার করেছে তার কোনো নির্দিষ্ট সংখ্যা উল্লেখ করেনি ওই দৈনিকটি।

এদিকে এই শিশু পাচারের ঘটনাকে ‘জঘন্য অপরাধ’ হিসেবে উল্লেখ করে পত্রিকায় প্রকাশিত প্রতিবেদনের সত্যতা যাচাই করে দেখার দাবি করেছে যুক্তরাজ্যের জাতীয় অপরাধ বিষয়ক সংস্থা। এরই প্রেক্ষিতে এ ঘটনার তদন্তের নির্দেশ দিলেন ওই ব্রিটিশ মন্ত্রী। একই সঙ্গে তিনি এ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা গ্রহণেরও নির্দেশ দিয়েছেন। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী তেরেসা মে এক বিবৃতিতে বলেছেন, ‘বিশ্বের কোনো শিশুকে তার পরিবারের কাছ থেকে বিচ্ছিন্ন করে দাস বানানো উচিত নয়।’


ভূমিকম্পের ভয়াবহতা থেকে ওঠে দাঁড়ানোর প্রচেষ্টায় এক মা

সোমবার প্রকাশিত সান প্রতিবেদনে আরো বলা হয়েছে, ওইসব নেপালি শিশুদের সমৃদ্ধশালী ব্রিটিশ পরিবারগুলোর কাছে গৃহকর্মী হিসেবে বিক্রি করা হচ্ছে। এদের বেশিরভাগই বিক্রি করা হয়েছে ইংল্যান্ডে। পত্রিকার রিপোর্টার বলেছেন, পাঞ্জাবের ওই পাচারকারী চক্রের মূল হোতা মাখন সিং নামের এক ব্যক্তি। তিনি শিশুদের সারিবদ্ধভাবে দাঁড় করিয়ে রেখেছিলেন। এসব নেপালি শিশুদের অধিকাংশকেই ইংল্যান্ডে নিয়ে যাওয়া হবে বলেও তিনি জানিয়েছেন। ওই দালাল এক একটা ছেলে শিশুর জন্য সাড়ে ৩ হাজার পাউন্ড বা ৫ লাখ ভারতীয় রুপি দাম হেঁকেছিলেন। মাখন সিং ওই প্রতিবেদকের কাছে একটি শিশু বিক্রি করার জোর চেষ্টা চালিয়েছিলেন। তিনি এসব শিশুদের দেখিয়ে বলছিলেন, ‘প্লিজ স্যার, এখান থেকে একটি নেপালি শিশুকে আপনার সঙ্গে ইংল্যান্ড নিয়ে যান। ওরা খুব ভালো। আপনার বাড়ির সমস্ত কাজ করবে। এরা রান্নাও ভালো জানে। ওদের নিয়ে আপনি কোনোরকম সমস্যায় পড়বেন না।’

প্রসঙ্গত, নেপালে গতবছরের ২৫ এপ্রিলে ৭ দশমিক ৮ মাত্রার ভূমিকম্পে ৯ হাজারের মত মানুষ প্রাণ হারায়। এতে সর্বস্বান্ত হয়েছে আরো লাখ লাখ মানুষ। এই সব নিঃস্ব পরিবারগুলোর শিশুদের নিয়েই ফায়দা লুটতে শুরু করেছে অর্থলিপ্সু পাচারকারীরা।

আর/১৭:১৯/০৪ এপ্রিল

দক্ষিণ এশিয়া

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে