Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 5.0/5 (1 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৩-২৭-২০১৬

অস্ট্রেলিয়াকে বিদায় করে সেমিফাইনালে ভারত

অস্ট্রেলিয়াকে বিদায় করে সেমিফাইনালে ভারত
ভারতের জয়ের নায়ক বিরাট কোহলি

মোহালি, ২৭ মার্চ- শুরুটা ভালো ছিল না। দ্রুতই বিদায় নিয়েছিল রোহিত, ধাওয়ান ও রায়না। তবে বুক চিতিয়ে বলতে গেলে একাই লড়াই করেছেন বিরাট কোহলি। পিটিয়ে ছাতু বানিয়ে দিয়েছেন অসি বোলারদের। আর তার ব্যাটিং ঝড়েই টি২০ বিশ্বকাপের সেমিতে পৌছে গেছে স্বাগতিক ভারত। রোববার রাতে গ্রুপ টুয়ের ম্যাচে অস্ট্রেলিয়াকে ৬ উইকেটে পরাজিত করে শেষ চারের টিকিট পায় ধোনি শিবির। আগামী ৩১ মার্চ দ্বিতীয় সেমিফাইনালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের মুখোমুখি হবে ভারত। একদিন আগে প্রথম সেমিতে মুখোমুখি হবে নিউজিল্যান্ড ও ইংল্যান্ড।

আগে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১৬০ রান সংগ্রহ করে অস্ট্রেলিয়া। জবাবে কোহলির দুর্দান্ত ইনিংসের উপর ভর দিয়ে ৫ বল হাতে রেখেই ৪ উইকেটে জয়ের লক্ষ্যে পৌছে যায় ভারত। ২০তম ওভারের প্রথম বলেই চার হাঁকিয়ে দলের জয় নিশ্চিত করেন অধিনায়ক ধোনি। তবে ম্যাচের নায়ক কোহলিই। ৫১ বলে যিনি থেকেছেন ৮২ রানে অপরাজিত। ম্যাচ জয়ী ইনিংসে তিনি হাঁকিয়েছেন নয়টি চার ও দুটি ছক্কা। অনুমিতভাবে ম্যাচ সেরার পুরস্কার পেয়েছেন বিরাট কোহলিই।

মোহালির পাঞ্জাব ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন আইএস বিন্দ্র স্টেডিয়ামে ভারতের হয়ে ইনিংসের গোড়াপত্তন করেন রোহিত শর্মা ও শিখর ধাওয়ান। শুরুটা ভালোই ছিল তাদের। সাবলিল ঢঙে রান আসতে শুরু করে। তবে চতুর্থ ওভারেই ছন্দপতন। বিদায় নেন শিখর ধাওয়ান। ভারতের দলীয় রান তখন ২৩। শর্ট ফাইন লেগে উসমান খাজার হাতে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন ১২ বলে ১৩ রান করা ভারতের এই ওপেনার।

বেশীক্ষণ থিতু হতে পারেননি আরেক ওপেনার রোহিত শর্মাও। ৫.৫ ওভারে শেন ওয়াটসনের বলে সরাসরি বোল্ড তিনি। সাজঘরে ফেরার আগে ১৭ বলে এক চারে ১২ রান করে যান রোহিত। দ্রুত ফেরেন সুরেশ রায়নাও। তিনিও ওয়াটসনের শিকার। সাত বলে ১০ রান করে নেভিলের হাত ক্যাচ দিয়ে ফেরেন তিনি।

তবে এরপর কোহলির সঙ্গে দৃঢ় জুটি গড়ার আভাস দেন যুবরাজ সিং। পায়ে চোট পেয়েও সাবলিল ছিলেন তিনি। কিন্তু দলীয় ৯৪ রানের মাথায় যুবরাজকে ফিরিয়ে ভারত শিবিরে হতাশা উপহার দেন অসি বোলার ফকনার। চতুর্থ উইকেট জুটিতে কোহলি-যুবরাজ করেন ৪৫ রান। ১৮ বলে এক ছয় ও এক চারে ২১ রান করে ফকনারের বলে ওয়াটসনের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন যুবরাজ।

তবে এরপর জয়ের জন্য বাকি কাজটুকু কোহলি করেছেন অধিনায়ক ধোনিকে সঙ্গে করেই। চার-ছক্কার ফুলঝুড়িয়ে সাজিয়ে দলকে জয়ের বন্দরে নিয়ে যান কোহলি। শেষটা করেছেন অবশ্য ধোনি। শেষ ওভারে দরকার ছিল মাত্র ৪ রান। প্রথম বলেই বাউন্ডারি হাঁকিয়ে দলকে উৎসবে মাতান ধোনি। ১০ বলে তিন চারে ১৮ রানে অপরাজিত থাকেন ধোনি। আর ৫১ বলে ৮২ রানের বিস্ফোরক ইনিংস খেলে অপরাজিত থাকেন কোহলি। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ওয়াটসন দুটি, ফকনার ও কাটার নীল নেন একটি করে উইকেট।

এর আগে টসে জিতে ব্যাট করতে নামে অস্ট্রেলিয়া। ব্যাট হাতে শুরুটা করছিল দুর্দান্ত। কিন্তু শেষটা চমকপ্রদ করতে পারেনি তারা। শেষ পর্যন্ত ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১৬০ রান সংগ্রহ করে স্টিভেন স্মিথরা।

অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে সর্বোচ্চ স্কোর করেন অ্যারোন ফিঞ্চ। পান্ডের বলে ধাওয়ানের হাতে ক্যাচ আউট হওয়ার আগে ৪৩ রান করেন তিনি। ৩৪ বলে তিনটি চার ও দুটি ছক্কায় এই স্কোর করেন তিনি। এছাড়া ম্যাক্সয়েল ৩১, খাজা ২৬, ওয়াটসন অপরাজিত ১৮ রান করেন। ভারতের হয়ে হার্দিক পান্ডে দুটি, নেহরা, বুমরাহ, যুবরাজ ও অশ্বিন নেন একটি করে উইকেট।

আর/১১:৫৭/২৭ মার্চ

ক্রিকেট

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে