Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০২-১৪-২০১৬

৭টি উপায়ে কোলেস্টেরলের মাত্রা রাখুন নিয়ন্ত্রণে

নিগার আলম


৭টি উপায়ে কোলেস্টেরলের মাত্রা রাখুন নিয়ন্ত্রণে

শতকরা ৮০ ভাগের বেশি মানুষেরা হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যাচ্ছেন। হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার মূল কারণ হল কোলেস্টেরল। লো-ডেনসিটি লাইপো প্রোটিন অথবা এলডিএল এর মতে খারাপ কোলেস্টেরল আস্তে আস্তে আপনাকে মৃত্যুর দিকে ধাবিত করে থাকে। আবার হাই ডেনসিটি লাইপো প্রোটিন (এইচডিএল) বা ভালো কোলেস্টেরল শরীরের জন্য বেশ উপকারী। তবে এই কোলেস্টেরল নিয়ন্ত্রণ করা কঠিন কিছু না। নিয়মতান্ত্রিক জীবনযাপন,খাদ্যভ্যাসের পরিবর্তন কোলেস্টেরল লেভেল নিয়ন্ত্রণে রাখা সম্ভব।

১। কমলার রস
তাজা কমলার রস কোলেস্টেরলের মাত্রা কমাতে সাহায্য করে থাকে। এক গবেষণায় দেখা গেছে দিনে ৩ গ্লাস কমলার রস এক মাসের মধ্যে এচডিএল এর লেভল শতকরা ২১ পারসেন্ট এবং এলডিএল বা এচডিএল এর মাত্রা ১৩ পারসেন্ট পর্যন্ত কমিয়ে দিয়ে থাকে। আপনি যদি কোলেস্টেরলে রোগী হয়ে থাকেন তবে নিয়মিত কমলার রস পান করুন।

২। ব্রাউন সিরিয়াল
গমের তৈরি খাবার ময়দার তৈরি খাবারে চেয়ে বেশি স্বাস্থ্যকর এবং নিরাপদ। এটি দেহে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে কোলেস্টেরলের মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে থাকে। ব্রাউন রাইস এবং সম্পূর্ণ রুটি এচডিএল এর মাত্রা বৃদ্ধি করে রক্তে চর্বির মাত্রা কমিয়ে দিয়ে থাকে।

৩। অলিভ অয়েল
স্বাস্থ্যকর জীবনযাপন করার জন্য অলিভ অয়েলের বিকল্প নাই। এটি খাবারের স্বাদ মান অটুট রেখে শরীরের কোলেস্টেরলের মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে থাকে। প্রতিদিনকার খাবারে অলিভ অয়েল ব্যবহার করুন।

৪। ওটমিল
ওটমিল হল হজমযোগ্য আঁশযুক্ত খাবার। প্রতিদিন ১-১/২ কাপ ওটমিল খাওয়ার চেষ্টা করুন। যা এলডিএল লেভেল ১২ থেকে ২৪ পর্যন্ত কমিয়ে আনতে সাহায্য করবে। ওটমিল ছাড়া দ্রবণীয় আঁশযুক্ত খাবার হল শিম, বেগুন, ঢেঁড়স ইত্যাদি।

৫। ফল এবং সবজি
সব রকম ফল এবং সবজি সাচুয়েটেড ফ্যাট এর অন্যতম উৎস। এটি সলিউবল ফাইবার বা দ্রবণীয় আঁশযুক্ত খাবার কোলেস্টেরলের মাত্রা হ্রাস করতে সাহায্য করে। ব্রকলি, আপেল, বেগুন, মটরশুঁটি, স্ট্রবেরি, বিভিন্ন প্রকার ডাল ইত্যাদি খাবার প্রতিদিনের খাদ্যতালিকায় রাখার চেষ্টা করুন।

৬। গ্রীন টি
প্রায় ১৪ টি গবেষণায় দেখা গেছে গ্রীন টি মোট এবং এলডিএল কোলেস্টেরলের লেভেল কমিয়ে দিয়ে থাকে।  Jimenez এর মতে এক থেকে দুই কাপ বা ৮ আউন্স গ্রীন টি প্রতিদিন পান করুন।

৭। আঙ্গুর রস
Smithson এর মতে প্রতিদিন ৮ আউন্স আঙ্গুরের রস নারীরা এবং ১৬ আউন্স আঙ্গুরের রস পুরুষরা পান করুন।  তবে বাজারে কেনা বা প্যাকেটজাত আঙ্গুরের রস নয়, ফ্রেশ আঙ্গুর রস খাওয়ার চেষ্টা করুন। কোলেস্টেরল নিয়ন্ত্রণ করা কঠিন কিছু নয়। নিয়মতান্ত্রিক জীবন, সঠিক ডায়েট আপনার কোলেস্টেরলের মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করতে সাহায্য করবে।

লিখেছেন- নিগার আলম

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে