Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print

আপডেট : ০৯-০৮-২০১৮

বীরগঞ্জ হাসপাতালে লাইব্রেরি স্থাপন

বীরগঞ্জ হাসপাতালে লাইব্রেরি স্থাপন

দিনাজপুর, ০৮ সেপ্টেম্বর- হাসপাতালে রোগী থাকবে, ওষুধ থাকবে, প্যাথলজিক্যাল যন্ত্রপাতি থাকবে এটা নিয়ম। কিন্তু লাইব্রেরি হবে, সেই লাইব্রেরিতে বসে মানুষ বই পড়বে। স্বপ্ন নয়, না এটাই বাস্তব। আর এ বাস্তব ঘটনা ঘটিয়ে হাসপাতালে লাইব্রেরি করে দেশের ইতিহাসে নজির স্থাপন করেছে বীরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স। লাইব্রেরিতে রয়েছে স্বাস্থ্য, পুষ্টি এবং নিরাপদ খাদ্যসহ স্বাস্থ্য বিষয়ক শতাধিক বই। শুধুমাত্র রোগীদের সঙ্গে আসা লোকজনই নয়, সাধারণ পাঠক আসছে এই লাইব্রেরিতে।

বৃহস্পতিবার সকালে হাসপাতালের লাইব্রেরিটি পরিদর্শন করেছেন দিনাজপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য মনোরঞ্জন শীল গোপাল। এর আগে গত ১ সেপ্টেম্বর দিনাজপুরের বীরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা বারান্দার করিডোরে আনুষ্ঠানিক লাইব্রেরিটি যাত্রা শুরু করে। এর উদ্বোধন করেন স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের যুগ্ম সচিব মো. আনোয়ার হোসেন। এছাড়া ব্যতিক্রমী লাইব্রেরিটির উদ্যোক্তা হিসেবে স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার মো. জাহাঙ্গীর আলম ব্যাপক প্রশংসা কুড়িয়েছেন।

হাসপাতালে রোগীরা আসেন সেবা নিতে। বিভিন্ন কারণে তাদের অলস সময় কাটে। তাছাড়া রোগী যখন হাসপাতালে নিঃসঙ্গতায় ভোগেন তখন তাদের বই হতে পারে সঙ্গী। লাইব্রেরির স্বাস্থ্য বিষয়ক বইগুলো সাধারণ মানুষকে দিবে স্বাস্থ্য সচেতনতা সম্পর্কে জ্ঞান, রোগ সম্পর্কে তথ্য, রোগের প্রতিকার সম্পর্কে প্রাথমিক ধারণা দিবে। এমন ধারণা নিয়ে দিনাজপুরের বীরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এ লাইব্রেরি চালু করা হয়েছে। এর পরিধি আরও বাড়ানো হচ্ছে বলে জানান হাসপাতালের ডা. মাহমুদুন নবী পলাশ।

সেবা নিতে আসা বীরগঞ্জের শীতলাই গ্রামের রহিম বখস উচ্চ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণির ছাত্র মো. লিয়ন ইসলাম বলেন, আমার আম্মা মজিদা বেগম বেশ কয়েকদিন জ্বরে ভুগছেন। এখানে চিকিৎসকের কাছে এসেছি। রক্ত পরীক্ষার রিপোর্টের জন্য অপেক্ষা করছিলাম । এ সময় লাইব্রেরি দেখতে পেয়ে আম্মুকে নিয়ে বই পড়ে সময় পার করলাম। আর জানতে পারলাম খাবার কীভাবে সংরক্ষণ ও জীবাণুমুক্ত রাখা যায়। পুষ্টিকর খাবার কি কি।

দেবীপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মো. আসাদুজ্জামান বাবু বলেন, স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে লাইব্রেরি স্থাপন একটি নতুন উদ্যোগ। যা মানুষকে নতুন ধারণা দিয়েছে। বিশেষ করে স্বাস্থ্য সেবায় সহায়ক ভূমিকা পালন করবে বলে আশা করি।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো. মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, আমার কাছে মনে হয়েছে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের লাইব্রেরিটি যেন কোনো না কোনোভাবে একজন চিকিৎসকের ভূমিকার রাখছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মো. জাহাঙ্গীর আলম জানান, ১ সেপ্টম্বর আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরুর পর থেকে পাঠকের বেশ সাড়া পড়েছে। প্রতিদিন রোগী এবং রোগীর সঙ্গে আসা তাদের স্বজনেরা এখানে বসে বসে বই পড়ে। আমাদের চিকিৎসক হতে শুরু করে সাধারণ মানুষ সকলেই যেন উপকৃত হয় এমন চিন্তা থেকে লাইব্রেরিটি স্থাপন করা হয়েছে। এখানে প্রাথমিক স্বাস্থ্য সমস্যা, শিশুদের নিরাপদ এবং পুষ্টিকর খাদ্য, শিশুর স্বাস্থ্য সেবা, বিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের জন্য জরুরি স্বাস্থ্য তথ্যসহ বাংলায় লেখা স্বাস্থ্য সেবামূলক নানা ধরণের বই রয়েছে। কেউ চাইলে অনুমতি সাপেক্ষে বাড়িতে বই নিয়ে পড়তে পারেন। পাঠকের সংখ্যা বাড়লে লাইব্রেরির পরিধি বৃদ্ধি করার পরিকল্পনা রয়েছে। তিনি বলেন, এ লাইব্রেরি থেকে কেউ যদি উপকৃত হয় তবেই স্বার্থক হবে আমাদের এই ছোট উদ্যোগটি। আমরা নিজেরাই এসব বই সংগ্রহ করেছি। এবং কেউ বই দিতে চাইলেও গ্রহণ করা হচ্ছে।

এ বিষয়ে সংসদ সদস্য মনোরঞ্জন শীল গোপাল বলেন, লাইব্রেরিটি যাতে আরও সমৃদ্ধি করা যায় সে বিষয়ে সব ধরণের সহায়তা প্রদান করা হবে।

তথ্যসূত্র: জাগোনিউজ২৪
এনওবি/১৫:৫৮/০৮ সেপ্টেম্বর

দিনাজপুর

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে