Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 3.0/5 (40 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print
আপডেট : ০৫-২৭-২০১৮

ঘর পাচ্ছে সেই তোফা ও তহুরা

ঘর পাচ্ছে সেই তোফা ও তহুরা

গাইবান্ধা, ২৭ মে- দেশব্যাপী আলোচিত বাংলাদেশে প্রথম অস্ত্রোপাচার করে আলাদা হওয়া জমজ বোন তোফা ও তহুরার জন্য ঘর বরাদ্দের প্রতিশ্রুতি দিয়েছে উপজেলা প্রশাসন। 'জমি আছে ঘর নাই' প্রকল্পের আওতায় তোফা ও তহুরার নানার বাড়ি গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার রামজীবন ইউনিয়নের কাশদহ গ্রামে একটি ঘর তৈরি করে দেওয়ার পরিকল্পনা চলছে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার এসএম গোলাম কিবরিয়া জানান, আমরা সরকারের নির্দেশে শুরু থেকেই তোফা ও তহুরার সঙ্গে ছিলাম, এখনও আছি। ঘর না থাকায় একটি ঘরের মধ্যে তোফা-তহুরা ও তাদের নানীর বাড়ির লোকজনের ঘুমাতে হয়। এতে তোফা-তহুরার রাতে ঘুমাতে কষ্ট হয়। এজন্য আমরা উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে তাদের ভালভাবে থাকার জন্য একটি ঘর তৈরি করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আমরা অচিরেই জেলা প্রশাসকের সঙ্গে কথা বলে তা বাস্তবায়নের পদক্ষেপ নেব।

ঢাকায় টানা সাড়ে চার মাস চিকিৎসা শেষে গত ২৪ ফেব্রুয়ারি রাতে গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার রামজীবন ইউনিয়নের কাশদহ গ্রামের নানার বাড়িতে ফিরেছে তোফা ও তহুরা। কিন্তু বাড়িতে বিদ্যুৎ না থাকায় গরমে দুই বোন অসুস্থ্য হয়ে পড়েে। গত ৯ মার্চ তোফা-তহুরার নানার বাড়িতে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া হয়। তোফা-তহুরার কারণে ওই এলাকায় বিদ্যুৎ সংযোগ চালু হওয়ায় এলাকাবাসী আনন্দিত।

প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ নির্দেশনায় ২০১৭ সালের ১২ সেপ্টেম্বর তোফা-তহুরাকে দেখতে এসে গাইবান্ধা জেলা প্রশাসক গৌতম চন্দ্র পাল ও সুন্দরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার এসএম গোলাম কিবরিয়া বিদ্যুৎ বিভাগকে তোফা-তহুরার বাড়িতে দ্রুত বিদ্যুতের সংযোগ প্রদানের আদেশ দেন। ওই সময় ইউএনও গরমের কষ্ট থেকে রেহাই পেতে তাদের বাড়িতে ৫০ ওয়াটের একটি সৌরবিদ্যুৎ লাগিয়ে দেন।

বাড়িতে ফিরলেও নিয়মিত তোফা-তহুরার খোঁজ-খবর নিচ্ছেন ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের শিশু সার্জারি বিভাগের অধ্যাপক ডা. সাহনুর ইসলাম।

মা শাহিদা বেগম বলেন, তোফা-তহুরা ভাল আছে। নিয়মিত বুকের দুধ খাচ্ছে। পাশাপাশি অন্য খাবারও খাচ্ছে। তারা একটু-একটু করে হাটার চেষ্টা করছে।

২০১৬ সালের ২৯ সেপ্টেম্বর কোমরে জোড়া লাগানো অবস্থায় গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার রামজীবন ইউনিয়নের কাশদহ গ্রামে নানার বাড়িতে তোফা ও তহুরার জন্ম হয়। গণমাধ্যমে বিষয়টি প্রকাশ হলে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় ৭ অক্টোবর ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাদের। এরপর  ১৬ অক্টোবর তাদের  প্রথম অস্ত্রোপচার করা হয়।  ২০১৭ সালের ১ আগস্ট তাদের আলাদা করার জন্য করা হয় দ্বিতীয় অস্ত্রোপচার। পরে সুস্থ হলে সে বছরেরই ১০ সেপ্টেম্বর রাতে ঢাকা থেকে গাইবান্ধায় ফেরে তোফা-তহুরা। আবারও তহুরা অসুস্থ্য হলে ২০১৭ সালের  ৮ অক্টোবর তহুরাকে ঢাকায় নেওয়া হলে সাড়ে চার মাস চিকিৎসা শেষে গত ২৪ ফেব্রুয়ারি বাড়িতে ফেরে জমজ দুই বোন তোফা-তহুরা। 

সূত্র: সমকাল
এমএ/ ০৯:৪৪/ ২৭ মে

গাইবান্দা

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে