Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 3.0/5 (45 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print

আপডেট : ০৫-২২-২০১৮

পাহাড়ে আবারো গোলাগুলি, রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশঙ্কা

পাহাড়ে আবারো গোলাগুলি, রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশঙ্কা

খাগড়াছড়ি, ২২ মে- খাগড়াছড়ি সদরের স্বনির্ভর বাজারে পাহাড়ের দুই আঞ্চলিক সন্ত্রাসী গ্রুপ ইউনাইটেট পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ প্রসীত) ও ইউপিডিএফ (গণতান্ত্রিক) এর মাঝে গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে।

মঙ্গলবার (২১ মে) বেলা দেড়টার দিকে বাজারের উত্তর পাশের রাবার কারখানা এলাকা ও চেঙ্গী নদীর পশ্চিম পাড় এলাকায় এ গোলাগুলির ঘটনা ঘটে।

খবর পেয়ে এলাকাটি ঘিরে রেখেছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী। এ ঘটনায় ইউপিডিএফ (প্রসীত গ্রুপ) কে দায়ী করে অভিযান চালিয়েছে যৌথবাহিনী। এ বিষয়ে ইউপিডিএফ ও ইউপিডিএফ গণতান্ত্রিকের মুখপাত্রদের মুঠোফোনে কল করা হলেও সংযোগ পাওয়া যায়নি।

খাগড়াছড়ি-পানছড়ি আঞ্চলিক সড়কে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক থাকলেও সন্দেহভাজন ব্যক্তি ও পরিবহনে তল্লাশি করছে পুলিশ ও বিজিবি। এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত খবংপুড়িয়া ও স্বর্নিভর এলাকায় যৌথবাহিনীর অভিযান চলছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মঙ্গলবার দুপুর দেরটার দিকে হঠাৎ করে রাবার কারখানা এলাকার দিকে গোলাগুলির শব্দ শোনা যায়। তার কিছুক্ষণ পরে নদীর পশ্চিম পাড় থেকেও গুলির শব্দ আসে। বাজারের ক্রেতা বিক্রেতার মাঝে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়লে বিজিবিরা এসে তাদের উদ্ধার করে নিয়ে যায়। ঘটনার পর থেকে বাজারের সবক’টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে।

খাগড়াছড়ি সদর থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) মো সাহাদাত হোসেন টিটো বলেন, আধিপত্য বিস্তার ও চাঁদাবাজীকে কেন্দ্র করে স্বনির্ভর বাজারে ইউপিডিএফ-তাদের প্রতিপক্ষের মধ্যে অর্ধশত রাউন্ড গুলি বিনিময়ের ঘটনা ঘটে। এখনও পর্যন্ত কোন হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। আশপাশের এলাকায় যৌথবাহিনীর অভিযান চলছে।

একটি সূত্র জানায়, দীর্ঘদিন যাবত পার্বত্য শান্তিচুক্তি বিরোধী আঞ্চলিক সংগঠন ইউপিডিএফ স্বনির্ভর বাজার ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে মোটা অংকের চাঁদা দাবি করে আসছিল। ওই চাঁদা না দেওয়ার কারণে হয়তোবা স্বনির্ভর বাজারে গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। এতে হতাহতের কোন খবর পাওয়া যায়নি।

সূত্রটি আরো জানায়, খাগড়াছড়ির পানছড়ি বাজারের বিভিন্ন আবাসিক হোটেলে তারা অবস্থান নিয়েছে বলে জানা গেছে। যেকোন সময় খাগড়াছড়ির স্বনির্ভর বাজার এবং পানছড়ি বাজারে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশঙ্কা করছে স্থানীয়রা।


তথ্যসূত্র: বিডি২৪লাইভ
আরএস/০৯:০০/ ২২ মে

খাগড়াছড়ি

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে