logo

‘ধর্মনিরপেক্ষতা’ এখন খারাপ শব্দ: অমর্ত্য সেন

‘ধর্মনিরপেক্ষতা’ এখন খারাপ শব্দ: অমর্ত্য সেন

কলকাতা, ২৪ জানুয়ারি- উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভাবে ভারতে ধর্মের নামে ভেদাভেদ করা হচ্ছে বলে অভিযোগ করলেন নোবেল জয়ী অর্থনীতিবিদ অমর্ত্য সেন। দেশজুড়ে অসহিষ্ণুতা ইস্যুতে বিজেপি সরকারকে তোপ দেগে অমর্ত্য সেনের আক্ষেপ- ধর্মনিরপেক্ষতা শব্দটাই ‘খারাপ শব্দে’ পরিণত হচ্ছে।  

শনিবার নেতাজী সুভাষ চন্দ্র বসুর ১১৯তম জন্মদিন উপলক্ষে কলকাতার নেতাজী ভবনে একটি অনুষ্ঠানে তার প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন এই নোবেল লরিয়েট। কলকাতার সংবাদমাধ্যম এবিপি আনন্দ এক প্রতিবেদনে এমন তথ্যই জানিয়েছে।

অমর্ত্য সেন বলেন, আমি মনে করি না, সমাজের সংখ্যাগরিষ্ঠ মানুষ হিন্দু, মুসলমান, খ্রিষ্টান বা অন্য কোনও সম্প্রদায়ের প্রতি ভেদাভেদের নজরে দেখেন। বর্তমান সময়ে এই দেশে, মানুষে মানুষে সাম্প্রদায়িক ভেদাভেদ তৈরি করার চেষ্টা হচ্ছে। পরিস্থিতি এমনই দাঁড়িয়েছে, ‘ধর্মনিরপেক্ষ’ শব্দটাই ‘খারাপ শব্দ’-এ পরিণত হচ্ছে। আমি সেই দিনের অপেক্ষা করছি, যেদিন ‘গণতন্ত্র’ বা ‘স্বাধীনতা’ শব্দগুলোও ‘খারাপ শব্দ’ হয়ে যাবে।

কেন্দ্রের সমালোচনা করার পাশাপাশি, অমর্ত্য সেন মনে করিয়ে দেন, বর্তমান সময়ে পাথেয় করতে হবে নেতাজির আদর্শকেই। তিনি বলেন, আমি মনে করি না, ভারতের কোনও স্বাধীন সরকার নেতাজির আদর্শকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে বিশেষ কিছু করেছে। বর্তমান সরকার তো এবিষয়ে সব থেকে কম করেছে। আমার মনে হয়, এই সময়ে সুভাষচন্দ্র বসুর আদর্শকে পাথেয় করাই ভীষণভাবে প্রয়োজন।

দাদরির প্রৗঢ় থেকে কাশ্মীরের ট্রাকচালক খুন। শিবসেনার কালি-কাণ্ড থেকে দিল্লির কেরল ভবনে পুলিশি হানা। হুমকির মুখে মুম্বইয়ে বাতিল পাক শিল্পী গুলাম আলির অনুষ্ঠান।সাম্প্রতিক অতীতে দেশে একের পর এক উঠে এসেছে উগ্র অসহিষ্ণুতার নজির। সমালোচনা ঝড় উঠেছে দেশজুড়ে। নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদও বার্তা দিয়েছেন সহিষ্ণুতার। এই প্রেক্ষিতে নাম না করে কেন্দ্রকে ফের কাঠগড়ায় তুললেন অমর্ত্য সেন।