logo

বিনিয়োগের বাধা দূর না হলে পদত্যাগ: প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী

বিনিয়োগের বাধা দূর না হলে পদত্যাগ: প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী

ঢাকা, ২০ জানুয়ারি- বাংলাদেশে প্রবাসীদের বিনিয়োগের ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধকতা দূর করতে না পারলে পদত্যাগ করার ঘোষণা দিয়েছেন প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থানমন্ত্রী নুরুল ইসলাম বিএসসি।

মঙ্গলবার বাণিজ্যিক গুরুত্বপূর্ণ (সিআইপি) অনাবাসী ১০ বাংলাদেশির হাতে কার্ড তুলে দেওয়ার সময় তিনি একথা বলেন। প্রবাসীদের উদ্দেশ্যে মন্ত্রী বলেন, “আমরা বিদেশ থেকে লোক নিয়ে আসব। আপনারা আপনাদের টাকা এখানে বিনিয়োগ করবেন। “বিনিয়োগে কোন প্রতিবন্ধকতা থাকলে আমার কাছে আসবেন। আমি সেই প্রতিবন্ধকতা দূর করতে সক্ষম হব। দূর করতে না পারলে পদত্যাগ করে চলে যাব।”

দক্ষ শ্রমিকদের বিদেশের পাঠানোর বিষয়টিতে নিজের আপত্তি জানিয়ে তিনি বলেন, “এটা আমার লাগে। এখানে এমন কর্মসংস্থান সৃষ্টি করতে পারিনি। যাতে এদেরকে কাজে লাগাতে পারি- তাই পাঠাতে হচ্ছে।”

সিআইপি মর্যাদা পাওয়া ১০ অনাবাসী বাংলাদেশি হলেন- সংযুক্ত আরব আমিরাত ভিত্তিক আল হারামাইন পারফিউমের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ মাহতাবুর রহমান, একই প্রতিষ্ঠানের পরিচালক মোহাম্মদ অলিউর রহমান, স্টার গোল্ডের নির্বাহী পরিচালক আবুল কালাম, ওমানের রাশেদ এস্টাবলিস্টমেন্টের মহাব্যবস্থাপক মোহাম্মদ কামাল পাশা, মোহাম্মদ শাহজাহান মিয়া, সাজেদা নূর বেগম, বাহরাইনের মোহাম্মদ শফি উদ্দিন এবং ইতালির ব্যবসায়ী মোহাম্মদ ইদ্রিছ ও জাহাঙ্গীর মোহাম্মদ হোসেন ও ওহিদ মোল্লা।

৩ জানুয়ারি তাদেরকে ২০১৪ সালের জন্য সিআইপি ঘোষণা করে প্রজ্ঞাপন জারি হয়। প্রবাসী কল্যাণ সচিব খন্দকার মো. ইফতেখার হায়দার বলেন, ২৫ জন প্রবাসীকে সিআইপি করার সুযোগ থাকলেও পর্যাপ্ত আবেদন না পাওয়ায় ১০ জনকে করা হয়েছে।

“বাংলাদেশে বিনিয়োগ ও বাংলাদেশ থেকে পণ্য আমদানি ক্যাটাগরিতে কাউকে পাওয়া যায়নি।” মন্ত্রী জানান, ২০১৫ সালের জন্য সিআইপির সংখ্যা বাড়িয়ে ৯০ জন করা হয়েছে। বাংলাদেশি বিনিয়োগকারীদের মধ্য থেকে ২০ জন, রেমিটেন্স পাঠানোর জন্য ৫০ জন এবং বাংলাদেশ থেকে পণ্য আমদানির জন্য ২০ জনকে এই মর‌্যাদা দেওয়া হবে। এর জন্য অনলাইনে আবেদন করা যাবে বলে জানান তিনি।