logo

পরিবর্তন হচ্ছে ইল্যান্ডের জাতীয় সংগীত

পরিবর্তন হচ্ছে ইল্যান্ডের জাতীয় সংগীত

লন্ডন, ১৪ জানুয়ারি- ‘গড সেভ দ্য কুইন’গানটি ইংল্যান্ডের জাতীয় সঙ্গীত ফুটবল খেলার সময়  খেলোয়াড়দেরকে গানটি গলা ছেড়ে গাইতে দেখা যায়। তবে আর পুরোনো গান নয়। জাতীয় সঙ্গীত পরিবর্তন করতে করতে এবার ব্রিটেনের সংসদ সদস্যরা নতুন বিল উত্থাপন করেছেন। খবর: দ্যগার্ডিয়ান

লেবার পার্টির সংসদ সদস্য টবি পার্কিংস নতুন জাতীয় সঙ্গীতের জন্য প্রস্তাব করে বলেন, জনগণ নির্ধারণ করবে কোনটা সবচেয়ে ভালো গান হতে পারে।

গার্ডিয়ানের খবরে বলা হয়, বুধবার সংসদ সদস্যরা প্রস্তাবে প্রাথমিকভাবে রাজি হয়েছে। আগামী মার্চের মধ্যে দ্বিতীয়বার হ্যাঁ সূচক রায় দিলে এবিষয়ে পদক্ষেপ নেবে সরকার।

‘গড সেভ দ্য কুইন’সাধারণত সব ধরনের খেলাধুলায় ইংল্যান্ডের পক্ষ থেকে গাওয়া হয়। উত্তর আইরিশরাও এই গানটি ব্যবহার করে থাকেন।আরস্কটল্যান্ড এবং ওয়েলসের নিজস্ব জাতীয় সঙ্গীত আগে থেকেই রয়েছে।

পার্কিংস বলেন, ‘আমি মনে করি সময় এসেছে ইংল্যান্ডের জাতীয় সঙ্গীত কি হবে তা নতুন করে বিবেচনা করার।’

তিনি আরও বলেন, ‘মানুষের আগ্রহ এটা নিশ্চিত করে যে ইংল্যান্ডের জাতীয় সঙ্গীত বদলের সময় এসেছে।’

এর আগে প্রধানমন্ত্রী ডেভিট ক্যারেরুন জানিয়েছিলেন, ইংল্যান্ডের জাতীয় সঙ্গীত হিসেবে উইলিয়াম ব্ল্যাকের কবিতা ‘জেরুজালেম’হলে ভালো হবে।

‘জেরুজালেম’সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয় বর্তমান ভোটে তা প্রমাণিত হয়েছে। এর আগে জনগণের ভোটে ইংল্যান্ডের জাতীয় সঙ্গীত হিসেবে কমনওয়েলথ গেম ২০১০ প্রতিযোগিতায় এই গানটি করার প্রস্তাব ভোটে স্বীকৃত হয়েছিল।

অবশ্য এটাই প্রথমবার নয় যে, সংসদে এই ধরনের ইস্যু ‍নিয়ে আলোচনা হয়েছে। খেলোয়াড়দের উদ্দেশে ২০০৭ সালে লিবারেল ডেমোক্রেট দলের সংসদ সদস্য গ্রেগ মুলহোলান্ড ইংলিশ স্পোর্ট অ্যাসোসিয়েশনকে বলেছিলেন একটা উপযুক্ত গান নির্বাচনের জন্য। ‘জেরুজালেম’কে অফিসিয়াল স্বীকৃতি দেওয়া জন্য ২০০৬ সালে কনজারভেটিভ এমপি ডেনিয়েল কাউসাইন্সকিও ডাক তুলেছিলেন।