logo

মানহানির মামলা করতে চলেছেন গেইল

মানহানির মামলা করতে চলেছেন গেইল

বিগ ব্যাশ চলাকালীন ক্যামেরার সামনেই ডেটিংয়ের প্রস্তাব দিয়েছিলেন ক্রিস গেইল। সেই ঘটনার জন্য সাত হাজার ডলার জরিমানা ধার্য করা হয় গেইলকে। ডেটিংয়ের প্রস্তাবের অব্যবহিত পরেই উঠে আসে ক্যারিবিয়ান দৈত্যর আর এক কীর্তির কথা।

বিগ ব্যাশ চলাকালীন ক্যামেরার সামনেই ডেটিংয়ের প্রস্তাব দিয়েছিলেন ক্রিস গেইল। সেই ঘটনার জন্য সাত হাজার ডলার জরিমানা ধার্য করা হয় গেইলকে। ডেটিংয়ের প্রস্তাবের অব্যবহিত পরেই উঠে আসে ক্যারিবিয়ান দৈত্যর আর এক কীর্তির কথা। এবং সেই কীর্তি ফাঁস করে ফেয়ারফ্যাক্স মিডিয়া। তা অবশ্য এখনকার নয়। অস্ট্রেলিয়া-নিউ জিল্যান্ডের মাটিতে বিশ্বকাপ চলাকালীন এক মহিলাকে কুৎসিত অঙ্গভঙ্গি করে বসেন গেইল। এই খবর পরিবেশন করেছিল ফেয়ারফ্যাক্স। ফেয়ারফ্যাক্সের এহেন তথ্য-সম্বলিত প্রতিবেদনকে ডাহা মিথ্যে বলে উল্লেখ করেন গেইল। তাঁর নামকে কলঙ্কিত করার চেষ্টার জন্য গেইলের ম্যানেজমেন্ট দল এবার ফেয়ারফ্যাক্স মিডিয়ার বিরুদ্ধে মানহানির মামলা করতে চলেছে।

দিনকয়েক আগে বিগ ব্যাশ লিগে সরাসরি সম্প্রচারের মাঝখানে গেইল ডেটিংয়ের আমন্ত্রণ করে বসেন এক ‘অজি’ সাংবাদিককেই। সেই মহিলা টেলিভিশন সাংবাদিককে লাইভ সম্প্রচারের মাঝখানেই একেবারে ডেটিংয়ের প্রস্তাব দিয়ে ফেলেন তিনি। যার পরে সমালোচনার ঝড় বয়ে যায় সর্বত্র। বিগ ব্যাশে সেই ম্যাচে হোবার্ট হ্যারিকেনকে পাঁচ উইকেটে হারায় গেইলের দল মেলবোর্ন রেনেগেডস। ১৫ বলে ৪১ রানের ঝড় তোলেন গেইল। তাঁর ব্যাটিং নিয়ে কথা বলতে গিয়েছিলেন অস্ট্রেলিয়ার চ্যানেল টেন–এর রিপোর্টার মেল ম্যাকলফলিন। সেই সময়ে গেইল সরাসরি প্রস্তাব দিয়ে বসলেন, ‘‘আশা করি দু’জনে একসঙ্গে কোথাও যেতে পারব।’’ ম্যাকলফলিন অবশ্য গেইলের এহেন প্রস্তাবকে পাত্তাই দেননি। খেলা নিয়েই কথা বলেছেন দু’ জনে।