logo

সঙ্গীতাঙ্গনে আলোচিত পাঁচ

সঙ্গীতাঙ্গনে আলোচিত পাঁচ

বছরটা ভালো-মন্দে পার করলেন আমাদের সংগীত তারকারা। কেউ নতুন জীবনের পাল তুলে দিলেন, কেউ গাইলেন বিচ্ছেদের গান, কেউ বিক্ষোভ জানাতে গিয়ে সমালোচনার ঝড় তুললেন। 

শাকিলার জীবনে রবির উদয়
 

নতুন জীবন শুরু করলেন সংগীতশিল্পী শাকিলা। দিল্লির কবি রবি শর্মাকে জীবনসঙ্গী করেছেন তিনি। রবি শর্মা পেশায় তড়িৎ প্রকৌশলী। এছাড়া তার বড় পরিচয় তিনি কবি। এর আগে একবার বিয়ে করেছিলেন মধ্যবয়সী এই কণ্ঠশিল্পী।

হৃদয়-সুজানার বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত
 

দীর্ঘদিন ভক্তদের এই জল্পনা-কল্পনাতেই কেটেছে যে, সংগীতশিল্পী হৃদয় খান ও মডেল সুজানা জাফরের প্রেম পরিণতিতে গড়াবে কবে। সত্যি সত্যি তারা একদিন বিয়ের পিড়িতে বসলেন। কিন্তু বছর না ঘুরতেই বিচ্ছেদের ঘোষণা দেন হৃদয়। এক ভিডিও বার্তায় তিনি জানান, “আপনারা সবাই জানেন, আমি প্রচণ্ড পরিমাণে ভালোবেসে সুজানাকে বিয়ে করছি গত বছরের পহেলা অগাস্ট। ৬ এপ্রিল থেকে আমাদের আর সংসার করা হচ্ছে না।”

ঢাকা থেকে ব্যাংককের হাসপাতালে লাকী আখন্দ
 

ফুসফুসের সমস্যা নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হন কিংবদন্তী সংগীতশিল্পী লাকী আখন্দ। পরে জানায় যায় ক্যান্সার হয়েছে তার। তার চিকিসার্থে প্রধানমন্ত্রীসহ আরও অনেকেই এগিয়ে আসেন, তার আগেই তিনি দ্ব্যার্থহীনভাবে জানান কারো সাহায্য নেবেন না। দেশের হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেয়েই থাইল্যান্ডে চলে যান আরো ভালো চিকিৎকার জন্য। এখনও সেখানেই আছেন, শারীরিক অবস্থা আগের চেয়ে ভালো বলেই জানা গেছে।

ভারতীয় অনুষ্ঠানে বিচারক অর্ণব এবং সিঙ্গল ‘তুই বল্লে’
 

ভারতীয় বাংলা টেলিভিশন চ্যানেল কালার্স বাংলার সংগীতভিত্তিক রিয়ালিটি শো ‘গ্রেট মিউজিক গুরুকুল’-এর অতিথি বিচারক এবং শিল্পী হিসেবে দেখা যায় তরুণ সংগীতশিল্পী সায়ান চৌধুরী অর্নবকে। অনুষ্ঠানের নিয়মিত বিচারক হরি হরণ, কবিতা কৃষ্ণমূর্তি, জাভেদ আলী এবং জিৎ গাঙ্গুলী। অর্ণব ২৮ মে প্রকাশ করেছেন অষ্টম স্টুডিও অ্যালবাম ‘খুব ডুব’। এরপর ‘তুই বল্লে’ শিরোনামে এমন একটি সিঙ্গল প্রকাশ করেন যার কথা ও সুর অন্যজনের, সেই গানে কণ্ঠ দিয়েছেন তিনি। 

চুলোয় যাক এই নরক: ফুয়াদ
 

দেশ ও দেশের রাজনীতি নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মন্তব্য করে বিপাকে পড়েন সংগীতশিল্পী ফুয়াদ আল মুক্তাদির। জানুয়ারির শুরুতে গুলশানে তার গাড়ি ভাংচুর হওয়ার পর ফেইসবুকে নিজের অ্যাকাউন্টে লেখেন, “বাংলাদেশ এখন নরক।” স্ট্যাটাসটি রাতভর আলোচনায় ছিল। অবসকিউর ব্যান্ডের ভোকালিস্ট টিপু ঐ স্ট্যাটাসের প্রতিবাদ জানান। টিপুর মন্তব্য, বাংলাদেশকে নিয়ে বিরুপ মন্তব্য করা ‘স্বার্থপরতা' এবং এমন শিল্পীকে অবিলম্বে দেশ ছেড়ে যাওয়ার অনুরোধও করেন তিনি। পরদিন সকালে সেই স্ট্যাটাস মুছে ফেলেন ফুয়াদ।